You are currently viewing তৃতীয় শ্রেণির বিজ্ঞান অধ্যায় ৯ শক্তি

তৃতীয় শ্রেণির বিজ্ঞান অধ্যায় ৯ শক্তি

তৃতীয় শ্রেণির বিজ্ঞান অধ্যায় ৯ শক্তি পোস্টে এই অধ্যায়ের অনুশীলনীর প্রশ্নউত্তর সহ অতিরিক্ত সংক্ষিপ্ত ও কাঠামোবদ্ধ প্রশ্নউত্তর ও ৩য় শ্রেণির বিজ্ঞান বইয়ের শেষে দেওয়া প্রশ্নের উত্তর দেখতে নিচে চোখ রাখুন।

৩য় শ্রেণির বিজ্ঞান অধ্যায় ৯ শক্তি

>> অধ্যায়টির মূলভাব জেনে নিই
আমরা দৈনন্দিন জীবনে যা কিছু করি তার সবকিছুতেই শক্তির ব্যবহার পরিলক্ষিত হয়। শক্তির বিভিন্ন রূপ রয়েছে। শক্তি ব্যবহৃত হতে পারে আলো, তাপ বা বিদ্যুৎ রূপে। শক্তির সাহায্যে আমরা নানা রকম পরিবর্তন ঘটাতে পারি। শক্তি হচ্ছে পরিবর্তনের উৎস। তবে সব শক্তির উৎস আসলে সূর্যের আলো।

৩য় শ্রেণির বিজ্ঞান অধ্যায় ৯ অনুশীলনীর প্রশ্ন ও উত্তর

১। শূন্যস্থান পূরণ কর।
১) তাপ, বিদ্যুৎ এবং আলো হচ্ছে —।
২) টেলিভিশন চলে — শক্তিতে।
৩) উদ্ভিদ — ব্যবহার করে নিজের খাদ্য তৈরি করে।
৪) দিয়াশলাই কাঠি জ্বালালে আমরা — ও — পাই।
উত্তর : ১) নানা ধরনের শক্তি, ২) বিদ্যুৎ, ৩) সূর্যের আলো, ৪) আলো, তাপ।
২। সঠিক উত্তরটিতে (চ) টিক চিহ্ন দাও।
(১) কোনটি শক্তি?
ক. টেলিভিশন খ. ফ্যান
চ গ. আলো ঘ. কলম
(২) কোনটি বিদ্যুৎ ব্যবহার করে চলে?
ক. ঠেলাগাড়ি চ খ. রেডিও
গ. সূর্য ঘ. বাষ্পীয় ইঞ্জিন

৩। নিচের প্রশ্নগুলোর উত্তর দাও।
১) শক্তি কী কী করতে পারে তার একটি তালিকা তৈরি কর।
উত্তর : শক্তি নানা রকম পরিবর্তন ঘটায়। শক্তি ব্যবহারে যে সকল পরিবর্তন ঘটে তা নিচে উল্লেখ করা হলোÑ
ক) কোনো জিনিসের স্থানে পরিবর্তন করতে পারে।
খ) শব্দ সৃষ্টি করতে পারে।
গ) আলো সৃষ্টি করতে পারে।
ঘ) তাপ সৃষ্টি করতে পারে।
২) বিভিন্ন প্রকার শক্তির নাম লেখ।
উত্তর : বিভিন্ন প্রকার শক্তি হলোÑ শব্দশক্তি, আলোকশক্তি, তাপশক্তি, বিদ্যুৎশক্তি, সৌরশক্তি ইত্যাদি।
৩) আলোক শক্তি আমাদের কী কী কাজে লাগে?
উত্তর : আলোক শক্তি আমাদের বিভিন্ন কাজে লাগে। যে সকল কাজে আলোক শক্তি ব্যবহার হয় সেগুলো নিচে দেওয়া হলোÑ
ক) এ শক্তির সাহায্যে আমরা দেখতে পাই।
খ) ঘর আলোকিত করার জন্য আলো ব্যবহার করা হয়।
গ) উদ্ভিদ সূর্যের আলো ব্যবহার করে নিজের খাদ্য তৈরি করে।
৪) বিদ্যুৎ শক্তি কী কী ভাবে ব্যবহার করা যেতে পারে বর্ণনা কর।
উত্তর : বিদ্যুৎ শক্তির ব্যবহার নিচে দেওয়া হলোÑ
ক) বৈদ্যুতিক বাতি জ্বালাতে, ফ্যান চালাতে, টেলিভিশন দেখতে বিদ্যুৎ শক্তি ব্যবহার করা।
খ) রেডিও শুনতে এবং খেলনাগাড়ি চালাতেও বিদ্যুতের প্রয়োজন হয়।
গ) রিফ্রিজারেটর ও কম্পিউটার চালাতে বিদ্যুৎ শক্তি ব্যবহার করা হয়।
৫) শীত অনুভব করলে আমরা হাতের তালু ঘষি কেন?
উত্তর : শীত অনুভব করলে আমরা হাতের তালু ঘষি। কারণ হাতের তালু ঘষলে ঘষর্ণের দ্বারা তাপশক্তি তৈরি হয়। ফলে হাতের তালু গরম হয় এবং শীতের কষ্ট লাঘব হয়।
৪। ডানপাশের শব্দের সঙ্গে বামপাশের শব্দের মিল কর।
তাপ আলো, তাপ ও বিদ্যুৎ
মোমবাতি পানি ফোটানো
শক্তি সূর্য
শক্তির উৎস আলো ও তাপ সৃষ্টি
উত্তর :
তাপ – পানি ফোটানো
মোমবাতি – আলো ও তাপ সৃষ্টি
শক্তি – আলো, তাপ ও বিদ্যুৎ
শক্তির উৎস – সূর্য

 

৩য় শ্রেণির বিজ্ঞান অধ্যায় ৯ অতিরিক্ত প্রশ্ন ও উত্তর

>> সত্য হলে ‘স’ এবং মিথ্যা হলে ‘মি’ লেখ :
১) সূর্যের আলো ছাড়া ফসলি উদ্ভিদ জন্মে না।
২) বিভিন্ন যন্ত্রপাতি চালাতে আমরা আলো ব্যবহার করি।
৩) সূর্য তাপের শক্তিশালী উৎস।
৪) তাপশক্তি আলো সৃষ্টি করতে পারে না।
৫) তাপশক্তি কোনো জিনিস নাড়াতে পারে।
৬) শক্তি প্রধানত তিনটি কাজ করতে পারে।
উত্তর : ১) স, ২) মি, ৩) স, ৪) মি, ৫) স, ৬) মি।
>> বামপাশের সঙ্গে ডানপাশের অংশের মিল কর।
ক) ঘর আলোকিত রিফ্রিজারেটর ও কম্পিউটার
খ) সূর্যের আলো তাপ
গ) বিদ্যুৎ করার সামর্থ্য
ঘ) কাঠ, কয়লা ও তেল ফসলি উদ্ভিদ
ঙ) শক্তি জ্বলন্ত মোমবাতি
উত্তর :
ক) ঘর আলোকিত – জ্বলন্ত মোমবাতি।
খ) সূর্যের আলো – ফসলি উদ্ভিদ।
গ) বিদ্যুৎ – রিফ্রিজারেটর ও কম্পিউটার।
ঘ) কাঠ, কয়লা ও তেল – তাপ।
ঙ) শক্তি – করার সামর্থ্য।
>> শূন্যস্থান পূরণ কর :
১) — শক্তির সাহায্যে আমরা দেখতে পাই।
২) সূর্যের আলো ছাড়া — ফলে না।
৩) বিদ্যুৎ আমরা পাই — অথবা আমাদের বাড়ির বৈদ্যুতিক লাইন থেকে।
৪) — জিনিসকে গরম করে।
৫) সূর্য তাপের — উৎস।
৬) শক্তি প্রধানত — কাজ করতে পারে।
৭) — ব্যবহার করে ট্রেন ও জাহাজ চলে।
৮) — আলো ছড়ায়।
৯) তাপশক্তিও — সৃষ্টি করতে পারে।
১০) কাপড় ইস্ত্রির সময় — তাপ সৃষ্টি করে।
উত্তর : ১) আলোক, ২) ফসলি উদ্ভিদ, ৩) ব্যাটারি, ৪) তাপশক্তি, ৫) শক্তিশালী, ৬) চারটি, ৭) বাষ্পের শক্তি, ৮) টেলিভিশন, ৯) আলো, ১০) বিদ্যুৎশক্তি।

সংক্ষিপ্ত প্রশ্ন ও উত্তর

১. তোমাদের বাড়িতে ব্যবহৃত শক্তি কোন কোন কাজে ব্যবহার হয়?
উত্তর : আমাদের বাড়িতে বিদ্যুৎ শক্তি ব্যবহার করে বৈদ্যুতিক বাতি জ্বালাই ও ফ্যান চালাই। টেলিভিশন দেখি ও রেডিও শুনি। গ্যাস জ্বালিয়ে যে তাপশক্তি পাই তা দিয়ে মা রান্নাবান্নার কাজ করেন। বিদ্যুৎশক্তি ব্যবহার করে আমরা রিফ্রিজারেটর ও কম্পিউটার চালাই এবং সূর্যের তাপশক্তির সাহায্যে কাপড় শুকাই।
২. সূর্যের আলো ছাড়া ফসলি উদ্ভিদ জন্মে না কেন?
উত্তর : সূর্য আলোর প্রধান উৎস। উদ্ভিদ তথা ফসলি উদ্ভিদ সূর্যের আলো ব্যবহার করে নিজের খাদ্য নিজে তৈরি করে। তাই সূর্যের আলো ছাড়া ফসলি উদ্ভিদ জন্মে না।
৩. তাপশক্তি আমাদের কী কী উপকার করে?
উত্তর : তাপশক্তি আমাদের অনেক উপকার করে। এটি জিনিসকে গরম করে। খাবার রান্না করতে, কাপড় শুকাতে এবং নিজেদেরকে গরম রাখতে আমরা তাপশক্তি ব্যবহার করি। কাঠ, কয়লা, তেল ও গ্যাস জ্বালিয়ে পাওয়া তাপশক্তি রান্না-বান্না ছাড়াও বিভিন্ন উৎপাদনমূলক কাজে ব্যবহার করা হয়।
৪. শক্তি বলতে কী বোঝায়?
উত্তর : কোনো কিছু করার সামর্থ্য হচ্ছে শক্তি। যেমন- তাপ এক প্রকার শক্তি, যা দিয়ে কোনো জিনিসকে গরম করা, কাপড় শুকানো ও রান্না-বান্নার কাজ করা হয়।
৫. তাপশক্তি কোনো জিনিসকে কীভাবে নাড়ায়? উদাহরণ দিয়ে বোঝাও।
উত্তর : তাপ এক প্রকার শক্তি। যেমনÑ পানিতে উত্তাপ দিলে বাষ্প তৈরি হয়। বাষ্পের শক্তি ব্যবহার করে ট্রেন ও জাহাজ চলে। এভাবে তাপ শক্তি কোনো জিনিসকে নাড়িয়ে থাকে।
৬. শক্তি কীভাবে আলো সৃষ্টি করে?
উত্তর : শক্তির কাজ করার সামর্থ্য আছে। এক শক্তি অন্য শক্তিতে পরিবর্তিত হয়। যেমনÑ বৈদ্যুতিক বাতি এবং টর্চ বিদ্যুৎশক্তি ব্যবহার করে আলো ছড়ায়। আবার বিদ্যুৎ চালিত টেলিভিশনে ছবি দেখা যায়। এক্ষেত্রেও বিদ্যুৎশক্তি আলোক শক্তিতে রূপান্তরিত হয়।

কাঠামোবদ্ধ প্রশ্ন ও উত্তর

ন্ধ সাধারণ
১. আমরা কীভাবে শক্তি ব্যবহার করি?
উত্তর : কোনো কিছু করতে হলেই শক্তি ব্যবহারের প্রয়োজন হয়। এক্ষেত্রে আলো, বিদ্যুৎ ও তাপকে বিভিন্ন কাজে আমরা শক্তি হিসেবে ব্যবহার করি। চারপাশের জিনিসকে দেখা, ঘরকে আলোকিত করা ও উদ্ভিদের খাদ্য তৈরি করা ইত্যাদি কাজে শক্তি হিসেবে আলো ব্যবহার হয়। বিভিন্ন যন্ত্রপাতি চালাতে শক্তি হিসেবে বিদ্যুৎ ব্যবহার হয়। খাবার রান্না, কাপড় শুকানো এবং কোনো জিনিসকে গরম রাখতে শক্তি হিসেবে তাপ ব্যবহার করা হয়।
২. শক্তি ব্যবহার করে আমরা কী কী করতে পারি?
উত্তর : শক্তি ব্যবহার করে আমরা অনেক কিছু করতে পারি। যেমন Ñ
১) রেডিওতে খবর ও গান শুনতে পারি।
২) আগুন ব্যবহার করে পানি ফুটাতে ও রান্নার কাজ করতে পারি।
৩) বৈদ্যুতিক বাতি, ফ্যান, টেলিভিশন ও কম্পিউটার চালাতে পারি।
৪) ট্রেন ও জাহাজ চালাতে পারি।
৫) কাপড় ইস্ত্রি করতে পারি।
৩. শক্তি কী কী কাজ করে? বিদ্যুৎ ও তাপের ২টি করে ব্যবহার লেখ।
উত্তর : শক্তি প্রধানত চারটি কাজ করতে পারে। যথাÑ
১) কোনো জিনিসের স্থান পরিবর্তন করা
২) শব্দ সৃষ্টি করা।
৩) আলো সৃষ্টি করা।
৪) তাপ সৃষ্টি করা।
বিদ্যুৎ শক্তির দুটি ব্যবহার হলোÑ
১) বৈদ্যুতিক বাতি জ্বালিয়ে ঘর আলোকিত করা যায়।
২) বৈদ্যুতিক ফ্যান চালিয়ে শরীর শীতল করা যায়।
তাপ শক্তির দুটি ব্যবহার হলোÑ
১) রান্নাবান্নার কাজ করা যায়।
২) কাপড় ইস্ত্রি করা যায়।
৪. আলোর প্রধান উৎস কী? আলোর দুটি উৎসের নাম লেখ। সূর্যের আলোর দুটি ব্যবহার উল্লেখ কর।
উত্তর : আলোর প্রধান উৎস সূর্য।
আলোর দুটি উৎস হলো – বৈদ্যুতিক বাতি এবং টর্চ।
সূর্যের আলোর দুটি ব্যবহার হলো-
১) উদ্ভিদ সূর্যের আলোর সাহায্যে নিজের খাদ্য নিজে তৈরি করে।
২) সূর্যের আলো ছাড়া ফসলী উদ্ভিদ ফলে না।
ন্ধ যোগ্যতাভিত্তিক
৫. তোমাদের বাসার ফ্যান চালাতে ও রান্না করতে কী ধরনের শক্তি ব্যবহার করা হয়? এদের উৎসগুলো লেখ। শক্তিগুলোকে অন্যান্য আর কী কী কাজে তুমি ব্যবহার করবে?
উত্তর : আমাদের বাসার ফ্যান ও রান্নার কাজে যথাক্রমে বিদ্যুৎ শক্তি ও তাপ শক্তির ব্যবহার করা হয়।
বিদ্যুতের উৎস হলো ব্যাটারি ও বিদ্যুৎ উৎপাদন কেন্দ্রের সরবরাহ লাইন। আর তাপের শক্তিশালী উৎস সূর্য। এছাড়া কাঠ, কয়লা, তেল ও গ্যাস জ্বালিয়ে তাপ পাওয়া যায়।
বিদ্যুৎ ও তাপশক্তিকে নিচের অন্যান্য কাজে ব্যবহার করব।
বিদ্যুতের অন্যান্য ব্যবহার : বাতি জ্বালাতে, টেলিভিশন দেখতে, রেডিও শুনতে, খেলনা গাড়ি, রিফ্রিজারেটর ও কম্পিউটার চালাতে এটির ব্যবহার করব।
তাপ শক্তির অন্যান্য ব্যবহার : কাপড় ও নিজেকে গরম রাখতে এটি ব্যবহার করব।

——————

প্রিয় জনের সাথে শেয়ার করুন

Leave a Reply