নবম-দশম শ্রেণির অর্থনীতি অধ্যায় ৫ বাজার

পঞ্চম অধ্যায়
 বাজার

অর্থনীতিতে বাজার বলতে শুধু বেচা-কেনার নির্দিষ্ট স্থানকে বোঝায় না। বরং বাজার হলো একটি প্রক্রিয়া। যে প্রক্রিয়ায় বিভিন্নভাবে ক্রেতা-বিক্রেতার মধ্যে দ্রব্য বা সেবা বেচা-কেনা হয়। শিখনফল
 বাজারের ধারণা ব্যাখ্যা করতে পারবে।
 বাজার বিকাশের ধারা বর্ণনা করতে পারবে।
 পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারের বৈশিষ্ট্য ব্যাখ্যা করতে পারবে।
 একচেটিয়া বাজার এবং একচেটিয়ামূলক প্রতিযোগিতার বাজারের মধ্যে তুলনা করতে পারবে।
 বাংলাদেশে বাজার ব্যবস্থার ধরন চিহ্নিত করতে পারবে।
 দ্রব্যসামগ্রীর দাম পরিবর্তনের কারণ ও এর প্রভাব জানতে উৎসাহিত হবে।
 প্রতিযোগিতার ভিত্তিতে বাজারের ধরন চার্ট অঙ্কন করে দেখাতে পারবে।
অধ্যায়ের গুরুত্বপূর্ণ বিষয়গুলো সংক্ষেপে জেনে রাখি

 বাজার : অর্থনীতিতে বাজার বলতে শুধু বেচা-কনার নির্দিষ্ট স্থানকে বোঝায় না। বরং বাজার হলো একটি প্রক্রিয়া। যে প্রক্রিয়ায় বিভিন্নভাবে ক্রেতা-বিক্রেতার মধ্যে দ্রব্য বা সেবা বেচা-কেনা হয়।
 বাজারের বিকাশ : বাজারের ধারণায় যে মৌলিক বিষয়গুলো কাজ করে তা হলো চাহিদা, যোগাান, সময় এবং দাম।
বাজার ব্যবস্থায় একটি সময়ে বিভিন্ন মাধ্যমে ক্রেতা ও বিক্রেতা দর কষাকষি করে দ্রব্য বা সেবার দাম নির্ধারণ করে বেচা-কেনা করে। এই ধারণার প্রেক্ষিতে সময়ের বিবর্তনে বিভিন্ন অবস্থার কারণে বিভিন্ন ধরনের বাজার ব্যবস্থার উৎপত্তি হয়েছে এবং বাজার ব্যবস্থার বিকাশ লাভ করেছে।
 বিকশিত বাজারের ধরন : বিকশিত বাজার মূলত তিন ধরনের হয়।
১. সময়ের প্রেক্ষিতে বাজার
র. অতি স্বল্পকালীন বাজার
রর. স্বল্পকালীন বাজার
ররর. দীর্ঘকালীন বাজার
২. পরিধি বা অঞ্চলের ভিত্তিতে বাজার
র. স্থানীয় বাজার
রর. জাতীয় বাজার
ররর. আন্তর্জাতিক বাজার

৩. প্রতিযোগিতার ভিত্তিতে বাজার
র. পূর্ণ প্রতিযোগিতার বাজার
রর. অপূর্ণ প্রতিযোগিতার বাজার
 প্রতিযোগিতায় ভিত্তিতে বাজারের শ্রেণিবিভাগ : প্রতিযোগিতার ভিত্তিতে বাজারের ধরনসমূহ হচ্ছে : র. পূর্ণ প্রতিযোগিতার বাজার; রর. অপূর্ণ প্রতিযোগিতার বাজার। অপূর্ণ প্রতিযোগিতার বাজার প্রধানত তিন প্রকার। ক. একচেটিয়া বাজার খ. অলিগপলি বাজার গ. একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজার।
 বাংলাদেশের বাজার ব্যবস্থা : বাংলাদেশের প্রকৃতি ও পরিবেশের কারণে বিভিন্ন পণ্যের ক্ষেত্রে বিভিন্ন ধরনের বাজার এবং বেচা-কেনার ধরন লক্ষ করা যায়।
১. বাংলাদেশে কোনো পণ্যের বিশুদ্ধ পূর্ণ প্রতিযোগিতার বাজার নেই তবে পূর্ণ প্রতিযোগিতার কাছাকাছি বাজার লক্ষ করা যায়। বাংলাদেশে কৃষিপণ্যের খুচরা বাজার এ বাজারের ভালো উদাহরণ।
২. বাংলাদেশে উৎপাদিত দ্রব্যের ক্ষেত্রে একচেটিয়া বাজার দেখা যায় না। তবে আমদানিকৃত পণ্য কিংবা সেবার ক্ষেত্রে এরূপ বাজার দেখা যায়।
৩. বাংলাদেশে বিভিন্ন পণ্যের বাজার একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক। যেমন : বিভিন্ন খাদ্যদ্রব্য, প্রসাধনী দ্রব্য।

 বহুনির্বাচনি প্রশ্নোত্তর 
১. ‘পণ্যের গুণাগুণ এবং দাম সম্পর্কে ক্রেতা ও বিক্রেতা পুরোপুরি জানে’ বৈশিষ্ট্যটি কোন বাজারের?
ক একচেটিয়া  পূর্ণ প্রতিযোগিতা
গ অলিগপলি ঘ একচেটিয়া প্রতিযোগিতা
২. দামের নিয়মে বেচাকেনা হলো
র. ক্রেতা-বিক্রেতার দরকষাকষির মাধ্যমে ক্রয়-বিক্রয়
রর. চাহিদা ও যোগানের পারস্পরিক ক্রিয়া-প্রতিক্রিয়ার মাধ্যমে ক্রয়-বিক্রয়
ররর. নির্দিষ্ট মূল্যের ভিত্তিতে ক্রয়-বিক্রয়
নিচের কোনটি সঠিক?
ক র  র ও রর গ রর ও ররর ঘ র ও ররর
নিচের অনুচ্ছেদটি পড়ে ৩ ও ৪ নং প্রশ্নের উত্তর দাও :
সিদ্দিক সাহেব রাস্তার পাশের বাজার থেকে ছোট মাছ, মুরগি নিয়ে ৮টার সময় বাসায় আসেন, মিসেস সিদ্দিক সবজি আনতে বললে তিনি বলেন, এখন তো আর পাওয়া যাবে না।
৩. জনাব সিদ্দিক কোন ধরনের বাজার থেকে মাছ, মুরগি ক্রয় করেন?
 অতি স্বল্পকালীন খ দীর্ঘকালীন
গ অতি দীর্ঘকালীন ঘ স্বল্পকালীন
৪. উক্ত বাজারের বৈশিষ্ট্য হলো
র. দ্রব্যের কেনাবেচার জন্য অনেক লোকের আগমন
রর. বিক্রিত দ্রব্যগুলোর গুণাগুণ ও গঠন প্রকৃতি একই ধরনের
ররর. একই ব্যক্তি বাজারের দ্রব্যের যোগান নিয়ন্ত্রণ করে
নিচের কোনটি সঠিক?
 র ও রর খ র ও ররর গ রর ও ররর ঘ র, রর ও ররর

 সৃজনশীল প্রশ্ন ও উত্তর 
প্রশ্ন- ১  প্রতিযোগিতার ভিত্তিতে বাজারের শ্রেণিবিভাগ

কামাল : আমাকে একটি ম্যাটাডর কলম দিন।
দোকানদার : ভাইয়া এ সপ্তাহে ইকোনো কলমের দাম কমেছে, নেবেন কি?
কামাল : কেন ম্যাটাডর থেকে ইকোনো কলম কি মানে-গুণে আলাদা?
দোকানদার : না তেমন নয়। বাজারে অনেক কোম্পানি আছে তাদের সবার কলম প্রায় একই মানের কেবল দেখতে সামান্য ভিন্ন।
কামাল : তাহলে আমাকে ম্যাটাডরই দিন। এটিই আমার ভালো লাগে।
ক. ফার্ম কাকে বলে?
খ. স্বল্পকালীন বাজারের ধারণাটি ব্যাখ্যা কর।
গ. কামালের ক্রয়কৃত দ্রব্যটি কোন বাজারের পণ্য? ব্যাখ্যা কর।
ঘ. পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারের সাথে কামালের ক্রয়কৃত পণ্যের বাজারের সম্পর্ক বিশ্লেষণ কর।

ক একটি মাত্র দ্রব্য উৎপাদন করে এমন একটি ব্যবসায়ী প্রতিষ্ঠানকে ফার্ম বলে।
খ স্বল্পকালীন বাজার বলতে এমন বাজার ব্যবস্থাকে বোঝায় যেখানে চাহিদার পরিবর্তন হলে যোগান কিছুটা সাড়া দিতে সক্ষম। স্বল্পকালীন বাজারে ফার্ম নির্দিষ্ট আয়তনের মধ্যে থেকে পরিবর্তনশীল উপকরণগুলোর পরিবর্তনের মাধ্যমে যোগানে খানিকটা পরিবর্তন আনতে পারে। আবার বাজারে দ্রব্যের চাহিদা কমে গেলে ফার্ম উৎপাদন করতেও পারে বা বাজারের অবস্থা খুব খারাপ হলে উৎপাদন সাময়িকভাবে বন্ধও করে দিতে পারে। সুতরাং স্বল্পকালীন সময়ে দ্রব্যের চাহিদার যেকোনো পরিবর্তনে যোগান কিছুটা সাড়া দিতে সক্ষম হয়।
গ কামালের ক্রয়কৃত দ্রব্যটি একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারের। একচেটিয়া প্রতিযোগিতায় বিভিন্ন ফার্ম যে দ্রব্যগুলো উৎপাদন করে, তা সদৃশ হলেও অভিন্ন নয়। অর্থাৎ দ্রব্যের মধ্যে কিছু ভিন্নতা থাকে। আর এই দ্রব্যের পৃথকীকরণের মধ্যে একচেটিয়া বাজারের উপকরণ বিদ্যমান। আবার বহুসংখ্যক ক্রেতা-বিক্রেতা থাকায় পূর্ণ প্রতিযোগিতার উপকরণও পরিলক্ষিত হয়। সুতরাং সমজাতীয় অথচ পৃথকীকরণ করা যায় এমন সব দ্রব্য নিয়ে প্রতিযোগিতা এবং একচেটিয়া উৎপাদন সমন্বয়ে যে বাজার গড়ে ওঠে, তাকে একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজার বলে। উদ্দীপকে উল্লিখিত বিভিন্ন কোম্পানির কলমের ব্যবহার একই রকম হলেও এগুলোকে বাহ্যিক আবরণ দেখে আলাদা করা যায়। কোনো কোম্পানির কলমের দাম বাড়লে কলমের চাহিদা সামান্য কমতে পারে কিন্তু শূন্য হয় না। কারণ এই কলমের ভক্ত সবসময় এই কলমটিই কেনে। এমনটিই দেখা যায় কামালের ক্ষেত্রেও। সুতরাং দেখা যাচ্ছে, একচেটিয়া প্রতিযোগিতার বাজারে দ্রব্যের দামের পরিবর্তন হলেও ক্রেতা দ্রব্য ভোগ ও ব্যবহার ত্যাগ করে না।
ঘ উদ্দীপকে বর্ণিত কামালের ক্রয়কৃত পণ্যের বাজারটি হলো একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজার। নিচে পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারের সাথে একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারের সম্পর্ক বিশ্লেষণ করা হলো : পূর্ণ প্রতিযোগিতা এমন এক বাজার ব্যবস্থা যেখানে অসংখ্য ক্রেতা এবং বিক্রেতা সমজাতীয় দ্রব্য বেচা-কেনা করেন। বাজারে চাহিদা ও যোগান দ্বারা পণ্যের মূল্য একবার নির্ধারিত হলে কোনো ক্রেতা বা বিক্রেতার পক্ষে তা পরিবর্তন করা সম্ভব হয় না। একজন ক্রেতার চাহিদা বা একজন বিক্রেতার যোগান বাজারের একটা নগণ্য অংশ মাত্র। সুতরাং একজন বা অল্প কয়েকজন ক্রেতা-বিক্রেতা সমজাতীয় দ্রব্যের বাজার মূল্যকে প্রভাবিত করতে পারে না। সুতরাং পূর্ণ প্রতিযোগিতার বাজারে একবার মূল্য নির্ধারিত হলে ক্রেতা বা বিক্রেতাকে তা মেনে নিতে হয়। একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারে পূর্ণ প্রতিযোগিতা এবং একচেটিয়া বাজারের কতিপয় বৈশিষ্ট্য একযোগে দেখা যায়। একচেটিয়া প্রতিযোগিতায় বিভিন্ন ফার্ম যে দ্রব্যগুলো উৎপাদন করে, তা সদৃশ হলেও অভিন্ন নয়। অর্থাৎ দ্রব্যের মধ্যে কিছু ভিন্নতা থাকে। আর এই দ্রব্যের পৃথকীকরণের মধ্যে একচেটিয়া বাজারের উপকরণ বিদ্যমান। আবার বহুসংখ্যক ক্রেতা-বিক্রেতা থাকায় পূর্ণ প্রতিযোগিতার উপকরণও পরিলক্ষিত হয়। একচেটিয়া বাজারের উদাহরণ হলো গায়ে মাখার সাবানের বাজার। বিভিন্ন কোম্পানির গায়ে মাখার সাবান ব্যবহার একই ধরনের হলেও এই সাবানগুলো পৃথক করা সম্ভব। যেমন মোড়ক ভিন্ন বা গন্ধ ভিন্ন ইত্যাদি। এসব সাবানের যেকোনো একটির দাম বাড়লে সাবানটির চাহিদা সামান্য কমতে পারে, তবে শূন্য হয় না। এই সাবানের ভক্ত ক্রেতা সবসময় এই সাবানটিই কেনে। উপর্যুক্ত আলোচনার প্রেক্ষিতে বলা যায়, পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারের সাথে একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারের সুস্পষ্ট পার্থক্য বিদ্যমান।

প্রশ্ন- ২  একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজার

রিমি একটি নির্দিষ্ট ব্রান্ডের ব্যাগ ব্যবহার করে। সে নতুন একটি ব্যাগ বাজারে কিনতে গেলে দাম আগের চেয়ে অনেক বেশি দেখতে পায়। এর কারণ জানতে চাইলে দোকানি জানায় যে উক্ত ব্যাগ একটিমাত্র কোম্পানি আমদানি করে। কোম্পানি দাম বাড়ালে তাদের কিছু করার থাকে না। অনুরূপ কোনো ব্যাগ বাজারে না থাকায় রিমিকে উচ্চ দরে ব্যাগটি ক্রয় করতে হয়।
ক. উপকরণ কাকে বলে?
খ. উৎপাদিত দ্রব্যের পৃথকীকরণ বলতে কী বোঝায়?
গ. রিমির ক্রয়কৃত পণ্যটি কোন বাজারের? ব্যাখ্যা কর।
ঘ. বাংলাদেশে রিমির ক্রয়কৃত পণ্যের বাজারের পরিধি কতটুকু? বিশ্লেষণ কর।

ক কোনো কিছু উৎপাদনের জন্য যেসব বস্তু বা সেবাকর্ম প্রয়োজন হয় সেগুলোকে উপকরণ বলে।
খ উৎপাদিত দ্রব্যের পৃথকীকরণ বলতে সমজাতীয় দ্রব্যসমূহকে বাহ্যিক ও গুণগত দিক থেকে পৃথক করা বোঝায়। একচেটিয়া প্রতিযোগিতার অধীনে বিভিন্ন ফার্ম যেসব পণ্য উপৎপাদন করে সেগুলো অনেকটা সদৃশ হলেও একটি অপরটি থেকে পৃথক করা সম্ভব। কারণ, দ্রব্যগুলো গুণগত ও বাহ্যিক দিক থেকে কিছুটা পৃথক হয়ে থাকে। অর্থাৎ দ্রব্য পৃথকীকরণের অর্থ হচ্ছে বিভিন্ন ফার্মের উৎপাদিত দ্রব্য পুরোপুরি সমজাতীয় নয়।
গ রিমির ক্রয়কৃত পণ্যটি বৈশিষ্ট্য বিচারে একচেটিয়া বাজারের অন্তর্ভুক্ত। যখন কোনো ফার্ম কোনো একটি দ্রব্য উৎপাদন করে অসংখ্য ক্রেতাকে যোগান দেয়, তখন সেই ফার্মকে একচেটিয়া কারবারি এবং যে বাজারে ঐ দ্রব্যটি কেনাবেচা হয় সেই বাজারকে একচেটিয়া বাজার বলা হয়। যে দ্রব্য বিক্রয়ে যে ফার্ম একচেটিয়া অধিকার করে সেই ফার্ম বাজারে সেই দ্রব্যের যোগান নিয়ন্ত্রণ করে। একমাত্র উৎপাদক হওয়ায় একচেটিয়া ফার্ম মূল্যও নিয়ন্ত্রণ করতে পারে। উদ্দীপকে এ ধরনের দৃষ্টান্ত উপস্থাপিত হয়েছে। রিমি বাজারে গিয়ে তার পছন্দের ব্র্যান্ডের ব্যাগ ক্রয় করতে গেলে ব্যাগটির দাম আগের চেয়ে বেশি দেখতে পায়। ব্যাগের দাম বৃদ্ধির ব্যাপারে জানতে চাইলে দোকানি তাকে জানায় যে, কোম্পানি ব্যাগটির দাম বাড়িয়ে দিয়েছে। একটিমাত্র কোম্পানি এ ধরনের ব্যাগ আমদানি করে বলে মূল্যবৃদ্ধির বিপরীতে তার কিছুই করার নেই। ফলে রিমি বাধ্য হয়ে উচ্চ দরেই ব্যাগটি ক্রয় করে। এখানে লক্ষণীয়, একটিমাত্র কোম্পানি বা ফার্ম একচেটিয়াভাবে বাজার নিয়ন্ত্রণ করছে। এক্ষেত্রে ব্যাগটির বিকল্প পরিবর্তক দ্রব্যও নেই। ফলে রিমির মতো ক্রেতারা উচ্চ দামে দ্রব্য কিনতে বাধ্য হচ্ছে। সুতরাং এসব বৈশিষ্ট্য বিচারে বলা যায়, রিমির ক্রয়কৃত পণ্যটি একচেটিয়া বাজারের বৈশিষ্ট্যই ধারণ করে আছে।
ঘ বাংলাদেশে রিমির ক্রয়কৃত পণ্যের বাজারটি হলো একচেটিয়া বাজার। এদেশে এ ধরনের পণ্যের বাজারের পরিধি সম্পর্কে নিচে বিশ্লেষণ করা হলো : একচেটিয়া বাজারে কোনো পণ্যের উৎপাদনকারী বা বিক্রেতা একজন থাকলেও তার ক্রেতার সংখ্যা থাকে অনেক। অধিকাংশ ক্ষেত্রেই একচেটিয়া বাজারের পণ্যের ক্রেতার সংখ্যা অনেক থাকায় তার পরিধি হয় বিস্তৃত। এ বাজারে পণ্যটির কোনো ঘনিষ্ঠ বিকল্প দ্রব্য না থাকায় উৎপাদনকারী বা বিক্রেতা তার দামের ওপর নিরঙ্কুশ প্রভাব বিস্তার করে। অবস্থার সুযোগ নিয়ে সে পণ্যের যথেচ্ছ দাম ধার্য করে। বিশেষ ধরনের ক্রেতারা ওই দামেই তা কেনে। বাংলাদেশে রিমির ক্রয়কৃত ব্র্যান্ডের ব্যাগের বাজার একচেটিয়া হলেও তার পরিধি বিস্তৃত নয়। এ ধরনের ব্যাগ কেবল দেশের বড় বড় শপিংমল কিংবা অভিজাত বিপণিগুলোতে পাওয়া যায়। সেখানে এ ধরনের ব্যাগের ক্রেতার সংখ্যা খুব বেশি থাকে না। এজন্য এ ব্যাগ আপাতদৃষ্টিতে একচেটিয়া বাজারের পণ্য হলেও তার বাজার পরিধি সীমিত। কম সংখ্যক ক্রেতা যেকোনো দামে স্বল্পসংখ্যক দোকান থেকে এ পণ্যটি কিনলেও এর বাজার সংকীণ

 বোর্ড ও সেরা স্কুলের বহুনির্বাচনি প্রশ্নোত্তর
সাধারণ বহুনির্বাচনি প্রশ্নোত্তর
১. বাজারের সংজ্ঞা দেন কে? [স. বো. ’১৬]
ক মার্শাল খ এ্যাডাম স্মিথ  কুর্নট ঘ ক্যানন
২. সময়ের প্রেক্ষিতে বাজার কত প্রকার? [স. বো. ’১৬]
ক ২ প্রকার  ৩ প্রকার গ ৪ প্রকার ঘ ৫ প্রকার
৩. নিচের কোনটি একচেটিয়া বাজারের পণ্য? [স. বো. ’১৬]
ক ঔষধ খ বই গ লিবার্টি জুতা  তিতাস গ্যাস
৪. বাংলাদেশের গ্যাসের বাজার কোন ধরনের বাজার? [স. বো. ’১৫]
একচেটিয়া খ অলিগোপলি
গ পূর্ণ প্রতিযোগিতা ঘ ডুয়োপলি
৫. যে বাজারে অসংখ্য ক্রেতা ও বিক্রেতা এবং সমজাতীয় দ্রব্য কেনা-বেচা করে, তা হলো [স. বো. ’১৫]
ক ডুয়োপলি বাজার খ একচেটিয়া বাজার
 পূর্ণ প্রতিযোগিতার বাজার ঘ অলিগোপলি বাজার
৬. বেসরকারি হাসপাতাল কোন ধরনের বাজারের অন্তর্ভুক্ত? [স. বো. ’১৫]
ক পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক খ ডুয়োপলি
গ অলিগোপলি  একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক
৭. কিসের প্রকৃতি অনুযায়ী বাজার ধারণা আলোচনা করা হয়?
[সিলেট সরকারি পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়]
ক দ্রব্যের খ উৎপাদনের  স্থানের ঘ মূল্যের
৮. কিসের ভিত্তিতে বাজারের ধরন ভিন্ন হতে পারে?
[দি বাডস রেসিডেনসিয়াল মডেল স্কুল এন্ড কলেজ, শ্রীমঙ্গল]
ক ক্রেতার খ বিক্রেতার  দ্রব্যের ধরন ঘ স্থানের
৯. অর্থনীতিবিদ কুর্নট কোন দেশের অধিবাসী? [নড়াইল সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়]
ক আমেরিকা খ ইংল্যান্ড  ফ্রান্স ঘ রাশিয়া
১০. সময়ের প্রেক্ষিতে বাজার কয় প্রকার? [সিলেট সরকারি পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়]
 ৩ খ ৪ গ ৫ ঘ ৬
১১. সকালের কাঁচাবাজার কোন ধরনের বাজারের উদাহরণ?
[কদমতলী পূর্ব বাসাবো স্কুল এন্ড কলেজ, ঢাকা]
ক অতি দীর্ঘকালীন খ দীর্ঘকালীন
গ স্বল্পকালীন  অতি স্বল্পকালীন
১২. অপূর্ণ প্রতিযোগিতার বাজারকে কয়ভাগে ভাগ করা যায়?
[সিলেট সরকারি পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়]
ক ২  ৩ গ ৪ ঘ ৫
১৩. প্রতিযোগিতার ভিত্তিতে বাজার কয় প্রকার?
[আজিমপুর গার্লস স্কুল এন্ড কলেজ, ঢাকা; অগ্রগামী সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়, সিলেট]
 ২ খ ৩ গ ৪ ঘ ৫
১৪. অঞ্চলভেদে বাজারকে কয় ভাগে ভাগ করা হয়?
[পুলিশ লাইন্স হাইস্কুল এন্ড কলেজ, বগুড়া]
ক ২  ৩ গ ৪ ঘ ৫
১৫. কোন বাজারে অল্প সময়ে যোগানের পরিবর্তন করা যায় না?
[সিলেট সরকারি পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়]
 অতি স্বল্পকালীন খ স্বল্পকালীন
গ দীর্ঘকালীন ঘ অতি দীর্ঘকালীন
১৬. কোন বাজারে দ্রব্যের দামের হ্রাস-বৃদ্ধির ক্ষেত্রে বিক্রেতার প্রভাব অকার্যকর থাকে? [বিএএফ শাহীন কলেজ, চট্টগ্রাম]
ক একচেটিয়া বাজারে  পূর্ণ প্রতিযোগিতা বাজারে
গ ডুয়োপলি বাজারে ঘ অলিগপলি বাজারে
১৭. উৎপাদন কাজ চালিয়ে যাওয়ার জন্য সরকার যে আর্থিক সুবিধা প্রদান করে তাকে কী বলে? [সিলেট সরকারি পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়]
ক রেশনিং  ভর্তুকি গ অনুদান ঘ সরকারি ঋণ
১৮. ‘গড়হড়’ শব্দের অর্থ কোনটি?
[যশোর জিলা স্কুল; অগ্রগামী সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়, সিলেট]
 এক খ দুই গ তিন ঘ চার
১৯. ‘গড়হড়ঢ়ড়ষু’ একচেটিয়া বাজারে কতজন ক্রেতা থাকে?
[দি বাডস রেসিডেনসিয়াল স্কুল এন্ড কলেজ, শ্রীমঙ্গল]
ক এক খ দুই গ তিন  অসংখ্য
২০. কোনটি একচেটিয়া বাজারের উদাহরণ?
[অগ্রগামী সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়, সিলেট]
 তিতাস গ্যাসের খ শেয়ার গ সাবানের ঘ কাঁচা
২১. যে বাজারে একজন বিক্রেতা থাকে তাকে কোন বাজার বলে?
[আর্মড পুলিশ ব্যাটালিয়ন স্কুল, বগুড়া]
ক পূর্ণ প্রতিযোগিতার খ অপূর্ণ প্রতিযোগিতার
 একচেটিয়া ঘ ডুয়োপলি
২২. একচেটিয়া বাজারে অধিক মুনাফা অর্জিত হয় কেন?
[পুলিশ লাইন্স হাইস্কুল এন্ড কলেজ, বগুড়া; সিলেট সরকারি পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়]
ক অসংখ্য ফার্ম থাকায় খ অসংখ্য ক্রেতা থাকায়
গ উৎপাদক বেশি হওয়ায়  নিকট পরিবর্তক দ্রব্য না থাকায়
২৩. নিচের কোনটি বাংলাদেশে একচেটিয়ামূলক প্রতিযোগিতার বাজারের উদাহরণ? [নড়াইল সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়;
দি বাডস রেসিডেনসিয়াল মডেল স্কুল এন্ড কলেজ, শ্রীমঙ্গল]
ক প্রাকৃতিক গ্যাস খ ডাকটিকিট
 সয়াবিন তেল ঘ মোটা চাল
বহুপদী সমাপ্তিসূচক বহুনির্বাচনি প্রশ্নোত্তর
২৪. বাজার ধারণায় মৌলিক বিষয় হলো [ক্যান্টনমেন্ট হাইস্কুল, যশোর;
সিলেট সরকারি পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়; মাতৃপীঠ সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়, চাঁদপুর]
র. চাহিদা
রর. যোগান
ররর. সময়
নিচের কোনটি সঠিক?
ক র ও রর খ র ও ররর গ রর ও ররর  র, রর ও ররর
২৫. পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারের বৈশিষ্ট্য হলো
[পুলিশ লাইন্স হাইস্কুল এন্ড কলেজ, বগুড়া]
র. অসংখ্য ক্রেতা-বিক্রেতা থাকে
রর. সমজাতীয় পণ্য কেনাবেচা হয়
ররর. উপকরণের পূর্ণ গতিশীলতা থাকে
নিচের কোনটি সঠিক?
ক র ও রর খ র ও ররর গ রর ও ররর  র, রর ও ররর
২৬. পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারে সরকারের প্রভাব নেই
[নড়াইল সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়]
র. কর আরোপে
রর. ভর্তুকি প্রদানে
ররর. রেশনিং-এ
নিচের কোনটি সঠিক?
ক র ও রর খ র ও ররর গ রর ও ররর  র, রর ও ররর
অভিন্ন তথ্যভিত্তিক বহুনির্বাচনি প্রশ্নোত্তর
নিচের অনুচ্ছেদটি পড়ে ২৭ ও ২৮ নং প্রশ্নের উত্তর দাও :
রহিমা বেগম নিজের ঘরের পাশে জমিতে সবজি চাষ করেন। তিনি প্রায়ই সকালবেলায় পাশের বাজারে ঐগুলো বিক্রি করেন। কিন্তু ভালো দাম পান না। [স. বো. ’১৫]
২৭. রহিমা বেগমের বাড়ির পাশের বাজারটি কোন ধরনের?
 স্থানীয় বাজার খ জাতীয় বাজার
গ আন্তর্জাতিক বাজার ঘ পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজার
২৮. রহিমা বেগমের দ্রব্যটির ন্যায্য দাম নিশ্চিত করতে হলে
র. যোগাযোগ ব্যবস্থা উন্নত করতে হবে
রর. বিক্রির জন্য কম জিনিস সরবরাহ করতে হবে
ররর. হিমাগার স্থাপন করতে হবে
নিচের কোনটি সঠিক?
ক র ও রর  র ও ররর গ রর ও ররর ঘ র, রর ও ররর
নিচের অনুচ্ছেদটি পড়ে ২৯ ও ৩০ নং প্রশ্নের উত্তর দাও :
মন্টু মিয়া বাজারে ৫০ কেজি মাছ নিয়ে যায়। শহর থেকে কোনো দিন পাইকার এলে বেশি দামে সব মাছ বিক্রি করে। আর কোনো দিন কোনো কারণে পাইকার না এলে কম দামে ৩০/৪০ কেজি বিক্রি করতে পারে। আর দেরি হওয়ার কারণে কখনো কখনো মাছ নষ্ট হয়ে যায়। [সিলেট সরকারি পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়]
২৯. মন্টু মিয়ার দ্রব্যের বাজার কোন ধরনের?
 স্থানীয় খ জাতীয় গ দীর্ঘকালীন ঘ পূর্ণ প্রতিযোগিতার
৩০. যেদিন সব মাছ বেশি দামে বিক্রি করে সেদিন মাছের বাজার কেমন?
ক স্থানীয় খ জাতীয়
গ দীর্ঘকালীন  পূর্ণ প্রতিযোগিতার
নিচের অনুচ্ছেদটি পড়ে ৩১ ও ৩২ নং প্রশ্নের উত্তর দাও :
রতন কাজীপাড়া গ্রামের একটি বাগানে শাকসবজি উৎপাদন করে। তার উৎপাদিত দ্রব্য আলু, বেগুন, শসা, পেঁপে ইত্যাদি। এলাকার চাহিদা মিটিয়ে পার্শ্ববর্তী এলাকার পাইকারদের নিকট বিক্রি করে। ফলে তার লাভ কম হয়।
[সিলেট সরকারি পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়]
৩১. রতনের উৎপাদিত দ্রব্যের বাজার কোন ধরনের?
ক স্বল্পকালীন  অতি স্বল্পকালীন
গ দীর্ঘকালীন ঘ অতি দীর্ঘকালীন
৩২. রতনের উৎপাদিত দ্রব্যের বাজার ব্যবস্থা সংকীর্ণ হওয়ার কারণ
র. সংরক্ষণের সমস্যা
রর. পাইকারদের দৌরাত্ম্য
ররর. অনুন্নত যোগাযোগ ও পরিবহন ব্যবস্থা
নিচের কোনটি সঠিক?
ক র ও রর খ র ও ররর গ রর ও ররর  র, রর ও ররর
নিচের অনুচ্ছেদটি পড়ে ৩৩ ও ৩৪ নং প্রশ্নের উত্তর দাও :
আনিস বাজারে গেল ইলিশ মাছ কেনার জন্য। একটি ইলিশ মাছের দাম বিক্রেতা ৬০০ টাকা চাইল। দামাদামির মাধ্যমে আনিস মাছটি ৫২৫ টাকা দিয়ে কিনল। [বি.কে.জি.সি. সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়, হবিগঞ্জ]
৩৩. আনিস কোন প্রকারের বাজার থেকে মাছটি কিনল?
ক জাতীয়  পূর্ণ প্রতিযোগিতা
গ ডুয়োপলি ঘ স্বল্পকালীন
৩৪. আনিস যে বাজারে যায় তার বৈশিষ্ট্য হলো
র. সমজাতীয় পণ্য রর. অসংখ্য ক্রেতা-বিক্রেতা
ররর. উপকরণের পূর্ণ গতিশীলতা
নিচের কোনটি সঠিক?
ক র ও রর খ র ও ররর গ রর ও ররর  র, রর ও ররর
 বিষয়ক্রম অনুযায়ী বহুনির্বাচনি প্রশ্নোত্তর
 ৫. বাজার  বোর্ড বই, পৃষ্ঠা- ৪৯
 একটি পণ্যকে ঘিরে ক্রেতা-বিক্রেতার মাঝে যে সংযোগ ঘটে তাকে বলে বাজার।
 ক্রেতা-বিক্রেতার দরকষাকষির মাধ্যমে দ্রব্যের দাম নির্ধারিত হয়।
 দ্রব্যের মধ্যে ভিন্নতা অনুযায়ী বাজারব্যবস্থা বিভিন্ন হয়।
 বাজার হলো একটি প্রক্রিয়া।
 বাজারের গ্রহণযোগ্য সংজ্ঞা দেন ফরাসি অর্থনীতিবিদ কুর্নট।
 একটি দ্রব্য তার ক্রেতা ও বিক্রেতা এবং দামকে বোঝায় বাজার।
সাধারণ বহুনির্বাচনি প্রশ্নোত্তর
৩৫. একটি পণ্যকে ঘিরে ক্রেতা-বিক্রেতার মধ্যে কী ঘটে? (জ্ঞান)
 সংযোগ খ বিয়োজন
গ আলোচনা ঘ বিস্তৃতি
৩৬. অর্থনীতিতে বাজার বলতে কোনটিকে বোঝায়? (জ্ঞান)
 দ্রব্যসামগ্রী ক্রয়-বিক্রয়ের প্রক্রিয়াকে
খ দ্রব্যসামগ্রী উৎপাদনের স্থানকে
গ ক্রেতা-বিক্রেতার সমাবেশকে
ঘ দ্রব্যসামগ্রী ক্রয়-বিক্রয়ের স্থানকে
৩৭. যে প্রক্রিয়ায় বিভিন্নভাবে ক্রেতা-বিক্রেতার মধ্যে দ্রব্য বা সেবা কেনা-বেচা হয়, তাকে কী বলে? (জ্ঞান)
 বাজার খ শিল্প গ ফার্ম ঘ বিনিয়োগ
৩৮. মূল্যের নিয়ম বলতে কী বোঝায়? (অনুধাবন)
ক দ্রব্যসামগ্রীর উৎপাদন খরচের বণ্টনকে
খ দ্রব্যসামগ্রীর তালিকা মূল্যকে
 ক্রেতা-বিক্রেতার দর কষাকষির মাধ্যমে নির্ধারিত মূল্যকে
ঘ বিক্রেতা কর্তৃক নির্ধারিত বিক্রয়মূল্যকে
৩৯. বাজারে দ্রব্যের মূল্য নির্ধারিত হয় কীভাবে? (অনুধাবন)
ক ক্রেতার ইচ্ছানুযায়ী খ বিক্রেতার ইচ্ছানুযায়ী
গ উৎপাদনকারীর সিদ্ধান্ত অনুযায়ী  দর কষাকষির মাধ্যমে
৪০. আনোয়ার সাহেব অনেক দর কষাকষি করে একটি শার্ট কিনলেন। তার এই দর কষাকষিকে কী বলা যায়? (প্রয়োগ)
ক বাজার  দামের নিয়ম
গ বাজারের ধরন ঘ ক্রেতার স্বাধীনতা
৪১. দ্রব্যের বেচাকেনা নিচের কোনটির ওপর অধিক নির্ভর করে? (অনুধাবন)
ক নির্দিষ্ট স্থান খ ক্রেতার ইচ্ছা
গ বিক্রেতার ইচ্ছা  নির্ধারিত মূল্য
৪২. নিচের কোনটি নির্ধারিত হলে ক্রেতা-বিক্রেতার মধ্যে দ্রব্য কেনা-বেচা হয়? (জ্ঞান)
ক চাহিদা  দাম গ উপযোগ ঘ যোগান
৪৩. সাধারণ অর্থে, বাজার বলতে কী বোঝায়? (জ্ঞান)
ক নির্দিষ্ট দ্রব্যসামগ্রীকে
 দ্রব্যসামগ্রী ক্রয়-বিক্রয়ের স্থানকে
গ দ্রব্যসামগ্রী ক্রয়-বিক্রয়ের প্রক্রিয়াকে
ঘ দ্রব্যসামগ্রী উৎপাদনের স্থানকে
৪৪. অর্থনীতির ভাষায় কোনটি বাজার? (অনুধাবন)
ক কারওয়ানবাজার খ নিউমার্কেট
 সোনার বাজার ঘ ভবের বাজার
৪৫. ফরাসি অর্থনীতিবিদ কুর্নট বাজারের সংজ্ঞায় জোর দিয়েছেন (উচ্চতর দক্ষতা)
ক দ্রব্যসামগ্রী ক্রয়-বিক্রয়ের স্থানের ওপর
খ দ্রব্যসামগ্রী উৎপাদনের স্থানের ওপর
গ দ্রব্যসামগ্রীর মূল্য নির্ধারণের ওপর
 ক্রেতা-বিক্রেতার অবাধ সংযোগে দ্রব্যের মূল্য সমান হওয়াকে
বহুপদী সমাপ্তিসূচক বহুনির্বাচনি প্রশ্নোত্তর
৪৬. দ্রব্যের দাম নির্ধারণে গুরুত্বপূর্ণ ভ‚মিকা রাখে (অনুধাবন)
র. চাহিদা
রর. যোগান
ররর. সময়
নিচের কোনটি সঠিক?
 র ও রর খ র ও ররর গ রর ও ররর ঘ র, রর ও ররর
৪৭. মূল্যের নিয়মের বৈশিষ্ট্য হলো (উচ্চতর দক্ষতা)
র. এটির ওপর দ্রব্যের বেচা-কেনা নির্ভরশীল
রর. এটি বাজারের প্রধান উপাদান
ররর. ক্রেতা-বিক্রেতার দর কষাকষির মাধ্যমে নির্ধারিত হয়
নিচের কোনটি সঠিক?
ক র ও রর  র ও ররর গ রর ও ররর ঘ র, রর ও ররর
৪৮. অর্থনীতিতে বাজারের বৈশিষ্ট্য হলো (অনুধাবন)
র. এটি একটি প্রক্রিয়া
রর. এর মাধ্যমে দ্রব্য বেচা-কেনা হয়
ররর. এর মাধ্যমে সেবা বেচা-কেনা হয়
নিচের কোনটি সঠিক?
ক র ও রর খ র ও ররর গ রর ও ররর  র, রর ও ররর
৪৯. অর্থনীতিতে বাজার বলতে কেবল বেচা-কেনার নির্দিষ্ট স্থানকে বোঝায় না, কারণ (উচ্চতর দক্ষতা)
র. সব বাজারে স্থান গুরুত্বপূর্ণ নয়
রর. বাজারে দ্রব্য ক্রয়-বিক্রয়ের প্রক্রিয়াই প্রধান
ররর. স্থান বাজারের আবশ্যক উপাদান নয়
নিচের কোনটি সঠিক?
ক র ও রর খ র ও ররর গ রর ও ররর  র, রর ও ররর
৫০. বাজারের উপাদান হলোÑ (অনুধাবন)
র. দ্রব্য
রর. ক্রেতা ও বিক্রেতা
ররর. নির্দিষ্ট দাম
নিচের কোনটি সঠিক?
ক র ও রর খ র ও ররর গ রর ও ররর  র, রর ও ররর
অভিন্ন তথ্যভিত্তিক বহুনির্বাচনি প্রশ্নোত্তর
নিচের অনুচ্ছেদটি পড়ে ৫১ ও ৫২ নং প্রশ্নের উত্তর দাও :
শাকিল অনেক দিন ধরে একটি সেকেন্ড হ্যান্ড স্মার্ট ফোন কিনতে চাচ্ছে। এ জন্য ‘এখানেই ডট কম’ নামের একটি অনলাইন পোর্টালে সে একটি মোবাইলের বিজ্ঞাপন দেখে ফোনের মাধ্যমে যোগাযোগ করে। ফোনে দর কষাকষির মাধ্যমে সে মনের মতো দামে মোবাইলটি কিনতে সক্ষম হয়।
৫১. অনুচ্ছেদে বাজারের কোন বৈশিষ্ট্যটি ফুটে উঠেছে? (প্রয়োগ)
 বাজার একটি প্রক্রিয়া খ বাজার একটি নির্দিষ্ট স্থান
গ বাজারে সেবা বেচাকেনা হয় ঘ বাজারে বিক্রেতার ভ‚মিকা গৌণ
৫২. শাকিলের দর কষাকষি করার কারণ হলো (উচ্চতর দক্ষতা)
র. দ্রব্যের দাম নির্ধারণ করা
রর. দ্রব্যের মান যাচাই কর
ররর. নির্দিষ্ট মূল্যে দ্রব্য কেনা
নিচের কোনটি সঠিক?
ক র ও রর  র ও ররর গ রর ও ররর ঘ র, রর ও ররর
নিচের অনুচ্ছেদটি পড়ে ৫৩ ও ৫৪ নং প্রশ্নের উত্তর দাও :
আনিস ঈদের শপিং করার জন্য ঢাকার নিউ মার্কেটে যায়। সেখান থেকে সে একটি শার্ট ও একটি প্যান্ট ক্রয় করে। কিন্তু কেনার সময় সে কোনো দর কষাকষি করেনি।
৫৩. অর্থনীতির পরিভাষা অনুসারে অনুচ্ছেদের কোনটিকে বাজার বলা যায়? (প্রয়োগ)
ক নিউ মার্কেটকে খ দোকানি ও আনিসের সম্পর্ককে
গ শার্ট ও প্যান্টের মূল্যকে  শার্ট-প্যান্ট ক্রয়-বিক্রয়ের প্রক্রিয়াকে
৫৪. অনুচ্ছেদে বাজারের যে বৈশিষ্ট্যটি অনুপস্থিত (অনুধাবন)
র. মূল্যের নিয়ম
রর. যোগানের নিয়ম
ররর. দর কষাকষির মাধ্যমে দাম নির্ধারণ
নিচের কোনটি সঠিক?
 র ও রর খ র ও ররর গ রর ও ররর ঘ র, রর ও ররর

 ৫.১ : বাজারের বিকাশ  বোর্ড বই, পৃষ্ঠা- ৪৯
 বাজার ধারণার মৌলিক বিষয় ৪টি।
 নির্দিষ্ট সময়ে ক্রেতা-বিক্রেতা দরকষাকষির মাধ্যমে দ্রব্য বা সেবার দাম নির্ধারণ করে তাকে বাজারব্যবস্থা বলে।
 সময়ের প্রেক্ষিতে বাজারের উৎপত্তি ৩ ধরনের।
 দ্রব্যের চাহিদা যেকোনো পরিবর্তনে যোগান কিছুটা সাড়া দিতে সক্ষম স্বল্পকালীন বাজারে।
 চাহিদার যেকোনো পরিমাণ পরিবর্তনে যোগানের তাৎক্ষণিক পরিবর্তন সম্ভব দীর্ঘকালীন বাজারে।
 অঞ্চলভেদে বাজারকে ভাগ করা হয় ৩ ভাগে।
 একটি মাত্র পণ্য উৎপাদনকারী প্রতিষ্ঠানকে বলে ফার্ম।
 একই ধরনের পণ্য উৎপাদনকারী ফার্মের সমষ্টিকে বলে শিল্প।
সাধারণ বহুনির্বাচনি প্রশ্নোত্তর
৫৫. বাজারের ধারণায় কয়টি মৌলিক বিষয় কাজ করে? (জ্ঞান)
ক ২  ৪ গ ৫ ঘ ৬
৫৬. বাজারের উৎপত্তি বিভিন্ন হয়েছে কিসের প্রেক্ষিতে? (জ্ঞান)
ক দ্রব্যের যোগানের খ দ্রব্যের চাহিদার
 সময়ের ঘ দ্রব্যের ধরনের
৫৭. যেখানে নির্দিষ্ট সময়ে বাজারে দ্রব্যের যোগান স্থির থাকে, তাকে কী বলে? (জ্ঞান)
 অতি স্বল্পকালীন বাজার খ স্বল্পকালীন বাজার
গ দীর্ঘকালীন বাজার ঘ অতি দীর্ঘকালীন বাজার
৫৮. অতি স্বল্পকালীন বাজারের বৈশিষ্ট্য কোনটি? (জ্ঞান)
ক যোগান খানিকটা সাড়া দিতে সক্ষম
 যোগান স্থির থাকে
গ যোগানের যেকোনো পরিবর্তন সম্ভব
ঘ চাহিদা স্থির থাকে
৫৯. সাধারণত কোন ধরনের দ্রব্যের বাজার অতি স্বল্পকালীন হয়? (প্রয়োগ)
ক পূর্ণ প্রতিযোগিতার খ শ্রম
 পচনশীল দ্রব্যের ঘ উপকরণ
৬০. কোন বাজারে প্রয়োজন অনুযায়ী যোগান বাড়ানো বা কমানো যায়? (জ্ঞান)
ক অতি স্বল্পকালীন  স্বল্পকালীন
গ দীর্ঘকালীন ঘ অতি দীর্ঘকালীন
৬১. চাহিদার পরিবর্তন হলে যোগান খানিকটা সাড়া দিতে সক্ষম কোন ধরনের বাজারে? (জ্ঞান)
ক অতি স্বল্পকালীন  স্বল্পকালীন
গ দীর্ঘকালীন ঘ অতি দীর্ঘকালীন
৬২. দীর্ঘকালীন বাজারের বৈশিষ্ট্য কোনটি? (উচ্চতর দক্ষতা)
ক যোগান অপরিবর্তিত থাকে  যোগানের যেকোনো পরিবর্তন সম্ভব
গ চাহিদা অপরিবর্তিত থাকে ঘ উৎপাদন বৃদ্ধি করা সম্ভব নয়
৬৩. কোন ধরনের বাজারের পরিধি কম বিস্তৃত? (জ্ঞান)
ক দীর্ঘকালীন খ জাতীয়
 স্থানীয় ঘ আন্তর্জাতিক
৬৪. ‘মাংসের বাজার’ কোন ধরনের বাজার? (জ্ঞান)
 স্থানীয় খ জাতীয় গ আন্তর্জাতিক ঘ দীর্ঘকালীন
৬৫. ‘মোটা চালের বাজার’ কোন ধরনের বাজার? (জ্ঞান)
ক স্থানীয় খ স্বল্পকালীন  জাতীয় ঘ অতি-স্বল্পকালীন
৬৬. নিচের কোনটি জাতীয় বাজারের দ্রব্য? (জ্ঞান)
 চাল খ মাছ গ তুলা ঘ সোনা
৬৭. বাংলাদেশের প্রেক্ষিতে আন্তর্জাতিক বাজারের উদাহরণ কোনটি? (প্রয়োগ)
 তৈরি পোশাকের খ প্রাকৃতিক গ্যাসের
গ সবজির ঘ খাদ্যশস্যের
৬৮. কোনটি আন্তর্জাতিক বাজারের দ্রব্য? (জ্ঞান)
ক চাল খ মাংস গ ফল  তৈরি পোশাক
৬৯. বিকশিত বাজার মূলত কয় ধরনের? (জ্ঞান)
ক ২  ৩ গ ৪ ঘ ৫
৭০. ফার্ম বলতে কী বোঝায়? (অনুধাবন)
 একটি মাত্র দ্রব্য উৎপাদনকারী প্রতিষ্ঠানকে
খ একাধিক দ্রব্য উৎপাদনকারী প্রতিষ্ঠানকে
গ দ্রব্য বিক্রয়কারী প্রতিষ্ঠানকে
ঘ দ্রব্য ক্রয়কারী প্রতিষ্ঠানকে
৭১. নিচের কোনটি শিল্পের বৈশিষ্ট্য? (অনুধাবন)
 একাধিক ফার্ম থাকে খ একটিমাত্র ফার্ম থাকে
গ পণ্যের মূল্য পরিবর্তনশীল হয় ঘ পণ্যের উৎপাদন পরিবর্তনশীল হয়
৭২. উৎপাদনে ব্যবহৃত যেকোনো মৌলিক উপাদানকে কী বলা হয়? (জ্ঞান)
ক কাঁচামাল খ মূলধন  উপকরণ ঘ উপযোগ
৭৩. কেরু এন্ড কোং চিনিকলে প্রচুর পরিমাণে আখের প্রয়োজন হয়। দেশের বিভিন্ন অঞ্চল থেকে কোম্পানিটি আখ ক্রয় করে। এক্ষেত্রে কোন ধরনের বাজার লক্ষণীয়? (প্রয়োগ)
ক শ্রম  উপকরণ গ অর্থ ঘ মূলধন
৭৪. উপকরণ বাজার কী? (অনুধাবন)
ক উপকরণ ক্রয়-বিক্রয়ের স্থান খ উপকরণ উৎপাদনের স্থান
 উপকরণ ক্রয়-বিক্রয়ের প্রক্রিয়া ঘ উপকরণের উপযোগিতা
৭৫. উপকরণের বেচাকেনা কিসের ওপর নির্ভর করে? (অনুধাবন)
 উপকরণের মূল্যের খ উপকরণের পরিমাণের
গ উপকরণের চাহিদার ঘ উপকরণের যোগানের
বহুপদী সমাপ্তিসূচক বহুনির্বাচনি প্রশ্নোত্তর
৭৬. অতি স্বল্পকালীন বাজারের বৈশিষ্ট্য হলো (অনুধাবন)
র. দ্রব্যের যোগান স্থির থাকে
রর. দ্রব্যের চাহিদা স্থির থাকে
ররর. দ্রব্যের মূল্যের হ্রাস-বৃদ্ধি ঘটে
নিচের কোনটি সঠিক?
ক র ও রর  র ও ররর গ রর ও ররর ঘ র, রর ও ররর
৭৭. স্বল্পকালীন বাজারের বৈশিষ্ট্য হলো (অনুধাবন)
র. যোগানের কিছুটা পরিবর্তন সম্ভব
রর. উৎপাদনের হ্রাস-বৃদ্ধি হয়
ররর. যোগান ইচ্ছামতো পরিবর্তন সম্ভব
নিচের কোনটি সঠিক?
 র ও রর খ র ও ররর গ রর ও ররর ঘ র, রর ও ররর
৭৮. দীর্ঘকালীন বাজারের বৈশিষ্ট্য হলো (অনুধাবন)
র. যোগানের যেকোনো পরিবর্তন সম্ভব
রর. উৎপাদনের আয়তনের পরিবর্তন সম্ভব
ররর. উৎপাদনের উপকরণের পরিবর্তন সম্ভব
নিচের কোনটি সঠিক?
ক র ও রর খ র ও ররর গ রর ও ররর  র, রর ও ররর
৭৯. শিল্পের বৈশিষ্ট্য হলো (অনুধাবন)
র. অসংখ্য ফার্মের সমন্বয়ে গঠিত
রর. একই ধরনের পণ্য উৎপাদনকারী ফার্ম থাকে
ররর. মূল্য ও উৎপাদন পরিবর্তনশীল হয়
নিচের কোনটি সঠিক?
 র ও রর খ র ও ররর গ রর ও ররর ঘ র, রর ও ররর
৮০. নাসিমা বেগম প্রতিদিন সকালে কাঁচাবাজার থেকে তরকারি ক্রয় করেন। এই বাজারের বৈশিষ্ট্য হলো (প্রয়োগ)
র. দ্রব্যের যোগান অপরিবর্তিত থাকে
রর. চাহিদার হ্রাস-বৃদ্ধি ঘটে
ররর. মূল্য অপরিবর্তিত থাকে
নিচের কোনটি সঠিক?
 র ও রর খ র ও ররর গ রর ও ররর ঘ র, রর ও ররর
৮১. বাজার ব্যবস্থার বিকাশ লাভ করার কারণ (অনুধাবন)
র. সময়ের বিবর্তন
রর. দ্রব্যের দাম নির্ধারণ করা
ররর. দ্রব্য বা সেবার ক্রয়-বিক্রয়
নিচের কোনটি সঠিক?
ক র ও রর খ র ও ররর গ রর ও ররর  র, রর ও ররর
অভিন্ন তথ্যভিত্তিক বহুনির্বাচনি প্রশ্নোত্তর
নিচের অনুচ্ছেদটি পড়ে ৮২ ও ৮৩ নং প্রশ্নের উত্তর দাও :
গফুর মিয়া প্রতিদিন সকালে পলাশীর মোড়ে তরকারি বিক্রি করেন। কোনো কোনো দিন তরকারির চাহিদা অনেক বেশি থাকে এবং তখন বেশি দামে তিনি তরকারি বিক্রি করেন।
৮২. অনুচ্ছেদে কোন ধরনের বাজারের ইঙ্গিত পাওয়া যায়? (প্রয়োগ)
 অতি স্বল্পকালীন খ স্বল্পকালীন
গ দীর্ঘকালীন ঘ অতি দীর্ঘকালীন
৮৩. গফুর মিয়া পরিচালিত বাজারের অসুবিধা হলো (উচ্চতর দক্ষতা)
র. যোগান স্থির থাকে
রর. স্বল্প সময়ে দাম বৃদ্ধি পায়
ররর. স্বল্প সময়ে পণ্যের চাহিদা হ্রাস পায়
নিচের কোনটি সঠিক?
ক র ও রর খ র ও ররর গ রর ও ররর  র, রর ও ররর
নিচের অনুচ্ছেদটি পড়ে ৮৪ ও ৮৫ নং প্রশ্নের উত্তর দাও :
সেলিম মিয়া আগে মাছের ব্যবসা করতেন। এতে তিনি কিছু সমস্যার মুখোমুখি হতেন, কেননা মাছ দ্রæত পচনশীল পণ্য। তাই তিনি বর্তমানে জুতার ব্যবসা শুরু করবেন বলে ঠিক করেছেন।
৮৪. সেলিম মিয়ার পূর্বে কোনো ধরনের বাজার ব্যবসা করতেন? (প্রয়োগ)
 অতি স্বল্পকালীন খ অতি দীর্ঘকালীন
গ মধ্যমেয়াদি ঘ দীর্ঘকালীন
৮৫. সেলিম মিয়া নতুন ব্যবসায় মুনাফা করতে পারেনÑ (উচ্চতর দক্ষতা)
র. স্বল্পমেয়াদে অস্বাভাবিক
রর. দীর্ঘমেয়াদে স্বাভাবিক
ররর. কখনও কখনও ক্ষতি
নিচের কোনটি সঠিক?
ক র ও রর খ র ও ররর গ রর ও ররর  র, রর ও ররর

 ৫.২ : প্রতিযোগিতার ভিত্তিতে বাজারের শ্রেণিবিভাগ
 বোর্ড বই, পৃষ্ঠা- ৫১
 প্রতিযোগিতার ভিত্তিতে বাজারের শ্রেণিবিভাগ ২ প্রকার।
 যে বাজারে অসংখ্য ক্রেতা-বিক্রেতা সমজাতীয় পণ্য ক্রয়-বিক্রয় করে তাকে বলে পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজার।
 উপকরণ পূর্ণ গতিশীল থাকে পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারে।
 ফার্মের অবাধে প্রবেশ ও প্রস্থানের সুযোগ রয়েছে পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারে।
 উপকরণসমূহের অবাধ বিচরণ থাকে পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারে।
 ভোক্তার পণ্যের দাম ও বাজার সম্বন্ধে পূর্ণ জ্ঞান থাকে পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারে।
সাধারণ বহুনির্বাচনি প্রশ্নোত্তর
৮৬. সমগ্র বাজার কাঠামোকে কিসের ভিত্তিতে বিশ্লেষণ করাটা অর্থনীতির জন্য বেশি তাৎপর্যপূর্ণ? (উচ্চতর দক্ষতা)
 প্রতিযোগিতার খ স্থানের গ সময়ের ঘ বিকাশের
৮৭. অসংখ্য ক্রেতা-বিক্রেতা সমজাতীয় দ্রব্য কেনাবেচা করে কোন বাজারে? (জ্ঞান)
ক একচেটিয়া খ অলিগপলি
 পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক ঘ অপূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক
৮৮. পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারে দ্রব্যের মূল্য কীভাবে নির্ধারিত হয়? (অনুধাবন)
ক বিক্রেতার ইচ্ছানুযায়ী  চাহিদা ও যোগানের মাধ্যমে
গ ক্রেতার দর কষাকষির মাধ্যমে ঘ সরকার কর্তৃক
৮৯. একবার মূল্য নির্ধারিত হলে কোনো ক্রেতা বা বিক্রেতার পক্ষে তা পরিবর্তন করা সম্ভব হয় না কোন বাজারে? (জ্ঞান)
 পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক খ একচেটিয়া ক্রেতার
গ একচেটিয়া বিক্রেতার ঘ অলিগপলি
৯০. অল্প কয়েকজন ক্রেতা-বিক্রেতা পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারের দ্রব্যের মূল্যকে প্রভাবিত করতে পারে না কেন? (অনুধাবন)
ক সরকার কর্তৃক দাম নির্দিষ্ট হওয়ায়
খ ক্রেতা-বিক্রেতার চাহিদা ও যোগান অসীম হওয়ায়
 ক্রেতা-বিক্রেতার চাহিদা ও যোগান নগণ্য হওয়ায়
ঘ সমজাতীয় পণ্য কেনাবেচা হওয়ায়
৯১. নিচের কোনটি পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারের বৈশিষ্ট্য? (অনুধাবন)
ক শিল্প ফার্মসমূহের অনুপস্থিতি খ স্বল্পকালীন স্থায়িত্ব
গ সীমিত চাহিদা ও যোগান  অসংখ্য ক্রেতা-বিক্রেতা
৯২. সমজাতীয় দ্রব্য বলতে নিচের কোনটিকে বোঝায়? (অনুধাবন)
 একই গুণসম্পন্ন ও পৃথকযোগ্য দ্রব্যকে
খ ভিন্ন গুণসম্পন্ন ও পৃথকযোগ্য দ্রব্যকে
গ একই গুণসম্পন্ন ও পৃথক অযোগ্য দ্রব্যকে
ঘ ভিন্ন গুণসম্পন্ন ও পৃথক অযোগ্য দ্রব্যকে
৯৩. আবিদ সাহেব তার সংসারের জন্য স¤প্রতি এক মণ চাল কিনেছেন। তিনি কোন ধরনের বাজার থেকে চাল কিনেছেন? (প্রয়োগ)
 পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক খ একচেটিয়া
গ একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক ঘ অলিগপলি
৯৪. স্বাভাবিক মুনাফা বলতে কী বোঝায়? (অনুধাবন)
ক মোট আয় বেশি হওয়াকে খ মোট ব্যয় বেশি হওয়া
 মোট আয়-ব্যয়ের সমতাকে ঘ মুনাফা সর্বাধিক হওয়াকে
৯৫. পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারের অধীনে শিল্পে ফার্মসমূহের বৈশিষ্ট্য কোনটি? (উচ্চতর দক্ষতা)
ক প্রবেশ ইচ্ছাধীন কিন্তু প্রস্থান শর্তসাপেক্ষ
খ প্রবেশ শর্তসাপেক্ষ কিন্তু প্রস্থান ইচ্ছাধীন
গ প্রবেশ ও প্রস্থান উভয়ই শর্তসাপেক্ষ
 প্রবেশ ও প্রস্থান শর্তবিহীন
৯৬. পূর্ণপ্রতিযোগিতামূলক বাজারে অন্যতম বিশেষত্ব কোনটি? (উচ্চতর দক্ষতা)
 বাহ্যিক প্রভাবমুক্ত খ সীমিত ক্রেতা-বিক্রেতার সমাবেশ
গ শিল্পের অনুপস্থিতি ঘ মূল্যের পরিবর্তনশীলতা
৯৭. কর আরোপ, ভর্তুকি প্রদান, রেশনিং ইত্যাদি মাধ্যমে সরকার প্রভাব সৃষ্টি করে না কোন বাজারে? (জ্ঞান)
 পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক খ একচেটিয়া
গ একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক ঘ অলিগপলি
৯৮. পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারে উপকরণের মূল্য সর্বত্র সমান থাকে কেন? (অনুধাবন)
ক বাহ্যিক প্রভাব না থাকায়  উপকরণের পূর্ণ গতিশীলতা থাকায়
গ সিদ্ধান্ত গ্রহণ স্বাধীন হওয়ায় ঘ উপকরণের সংখ্যা সীমিত হওয়ায়
৯৯. পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারে ফার্মসমূহের মূল লক্ষ্য কোনটি? (উচ্চতর দক্ষতা)
ক স্বাভাবিক মুনাফা অর্জন  সর্বনিম্ন ব্যয়ে সর্বোচ্চ মুনাফা অর্জন
গ সেবা প্রদান ঘ চাহিদা-যোগানের ভারসাম্য রক্ষা
১০০. পূর্ণ প্রতিযোগিতার বাজারে দীর্ঘমেয়াদে শিল্প কিরূপ মুনাফা অর্জন করে? (অনুধাবন)
ক সর্বোচ্চ খ সর্বনিম্ন  স্বাভাবিক ঘ অস্বাভাবিক
বহুপদী সমাপ্তিসূচক বহুনির্বাচনি প্রশ্নোত্তর
১০১. পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারে ক্রেতারা অবহিত থাকে (অনুধাবন)
র. পণ্যের গুণাগুণ সম্পর্কে
রর. পণ্যের উৎপাদনের পরিমাণ সম্পর্কে
ররর. পণ্যের মূল্য সম্পর্কে
নিচের কোনটি সঠিক?
ক র ও রর  র ও ররর গ রর ও ররর ঘ র, রর ও ররর
১০২. পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারের অধীনে শিল্পে ফার্মসমূহ (উচ্চতর দক্ষতা)
র. অবাধে প্রবেশ করতে পারে
রর. অবাধে প্রস্থান করতে পারে
ররর. স্বাভাবিক মুনাফা অর্জন করে
নিচের কোনটি সঠিক?
 র ও রর খ র ও ররর গ রর ও ররর ঘ র, রর ও ররর
১০৩. পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারের পণ্যসমূহের বৈশিষ্ট্য হলো (অনুধাবন)
র. একই গুণাগুণ সম্পন্ন
রর. পরিমাণগত দিক থেকে একই
ররর. পণ্যের এককগুলো গঠনগত দিক থেকে ভিন্ন
নিচের কোনটি সঠিক?
 র ও রর খ র ও ররর গ রর ও ররর ঘ র, রর ও ররর
১০৪. পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারে ফার্মের স্বাধীনতা থাকে (অনুধাবন)
র. দ্রব্যের মূল্য নির্ধারণের
রর. দ্রব্যের উৎপাদনের পরিমাণ নির্ধারণের
ররর. দ্রব্যের মূল্য ইচ্ছামতো পরিবর্তনের
নিচের কোনটি সঠিক?
 র ও রর খ র ও ররর গ রর ও ররর ঘ র, রর ও ররর
১০৫. গণি মিয়া চালের ব্যবসা করেন। এক্ষেত্রে তার পরিচালিত বাজারের বৈশিষ্ট্য হলো (প্রয়োগ)
র. অসংখ্য ক্রেতা থাকে
রর. ক্রেতা মূল্যকে প্রভাবিত করেন
ররর. উপকরণ মূল্য সর্বত্র সমান থাকে
নিচের কোনটি সঠিক?
ক র ও রর  র ও ররর গ রর ও ররর ঘ র, রর ও ররর
অভিন্ন তথ্যভিত্তিক বহুনির্বাচনি প্রশ্নোত্তর
নিচের ছকটি লক্ষ করে ১০৬ ও ১০৭নং প্রশ্নের উত্তর দাও :

১০৬. ‘?’ চি‎িহ্নত স্থানে নিচের কোনটি বসবে? (প্রয়োগ)
 পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজার
খ একচেটিয়া বাজার
গ একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজার
ঘ একচেটিয়া ক্রেতার বাজার
১০৭. ছকে উপস্থাপিত বৈশিষ্ট্যসমূহের আলোকে বলা যায় (উচ্চতর দক্ষতা)
র. পণ্যসমূহের গুণগত মান একই রর. উপকরণ মূল্য সর্বত্র সমান
ররর. দ্রব্যের পরিমাণগত একক ভিন্ন
নিচের কোনটি সঠিক?
 র ও রর খ র ও ররর গ রর ও ররর ঘ র, রর ও ররর
নিচের অনুচ্ছেদটি পড়ে ১০৮ ও ১০৯ নং প্রশ্নের উত্তর দাও :
অর্থনীতিতে এমন একটি বাজার ব্যবস্থা প্রচলিত আছে যেখানে উৎপাদন, দাম নির্ধারণ ইত্যাদি ক্ষেত্রে সরকারি কোনো হস্তক্ষেপ থাকে না। এ বাজারে প্রতিটি ফার্ম ক্ষুদ্র ক্ষুদ্র অংশে বিভক্ত করে দ্রব্য উৎপাদন করে বলে উৎপাদিত পণ্যের বাজার বিভাজ্য বলা যায়।
১০৮. অনুচ্ছেদে কোন বাজার ব্যবস্থার প্রতি ইঙ্গিত করা হয়েছে? (প্রয়োগ)
 পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক খ একচেটিয়া
গ অলিগপলি ঘ একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক
১০৯. উক্ত বাজার ব্যবস্থার লক্ষ্য (উচ্চতর দক্ষতা)
র. ফার্মের উৎপাদন ব্যয় সর্বনিম্নকরণ
রর. সরকার থেকে ভর্তুকি গ্রহণ
ররর. সর্বনিম্ন ব্যয়ে সর্বোচ্চ মুনাফা অর্জন
নিচের কোনটি সঠিক?
ক র ও রর  র ও ররর গ রর ও ররর ঘ র, রর ও ররর

 একচেটিয়া বাজার  বোর্ড বই, পৃষ্ঠা- ৫৩
 গড়হড়ঢ়ড়ষু শব্দের বাংলা প্রতিশব্দ হলোএকচেটিয়া বাজার।
 যে বাজারে শুধুমাত্র একজন বিক্রেতা অথচ অসংখ্য ক্রেতা থাকে সে দ্রব্যের বাজারকে বলে একচেটিয়া বাজার।
 অবাধে প্রবেশ ও প্রস্থানের সুযোগ নেই একচেটিয়া বাজারে।
 ফার্মই শিল্প হিসেবে বিবেচিত হয় একচেটিয়া বাজারে।
 একচেটিয়া বাজারে কোনো নিকটতম শিল্পদ্রব্য নেই।
 একচেটিয়া বাজারে নতুন ফার্ম প্রবেশ করলে একচেটিয়া কারবারী পণ্যের দাম কমিয়ে দেয়।
 একচেটিয়া কারবারির একমাত্র লক্ষ হলো মুনাফা অর্জন করা।
সাধারণ বহুনির্বাচনি প্রশ্নোত্তর
১১০. ‘চড়ষু’ শব্দের অর্থ কোনটি? (জ্ঞান)
ক ক্রেতা  বিক্রেতা
গ উৎপাদনকারী ঘ মধ্যস্থতাকারী
১১১. ‘গড়হড়ঢ়ড়ষু’ শব্দের অর্থ কোনটি? (জ্ঞান)
ক একজন মাত্র ক্রেতা খ একাধিক ক্রেতা
 একজন মাত্র বিক্রেতা ঘ একাধিক বিক্রেতা
১১২. যখন কোনো ফার্ম একটি দ্রব্য উৎপাদন করে অসংখ্য ক্রেতাকে যোগান দেয় তখন সেই বাজারকে কী বলে? (জ্ঞান)
 একচেটিয়া বাজার খ অলিগপলি বাজার
গ একচেটিয়া প্রতিযোগিতার বাজার ঘ পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজার
১১৩. ‘বাংলাদেশ পল্লি উন্নয়ন বোর্ড’ দেশের গ্রামজুড়ে বিদ্যুতের একচ্ছত্র যোগানদাতা। এক্ষেত্রে কোন ধরনের বাজার বৈশিষ্ট্য প্রকাশ পায়? (প্রয়োগ)
ক পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক  একচেটিয়া
গ অলিগপলি ঘ ডুয়োপলি
১১৪. কোন বাজারে ফার্ম ও শিল্পকে আলাদা করা যায় না? (জ্ঞান)
 মনোপলি
খ অলিগপলি
গ মনোপলি প্রতিযোগিতামূলক
ঘ পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক
১১৫. পুরোপুরি বাস্তবে খুঁজে পাওয়া কঠিন কোন ধরনের বাজার? (জ্ঞান)
 মনোপলি খ অলিগপলি
গ পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক ঘ একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক
১১৬. নিচের কোনটি মনোপলি মার্কেটের দৃষ্টান্ত? (প্রয়োগ)
 বাংলাদেশ অক্সিজেন খ শেয়ারবাজার
গ শ্রমবাজার ঘ উপকরণ বাজার
১১৭. সোবহান সাহেব তিতাস গ্যাস কোম্পানিতে কর্মরত আছেন। তার কর্মরত প্রতিষ্ঠানটি কোন ধরনের বাজারের অন্তর্ভুক্ত? (প্রয়োগ)
ক পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক  মনোপলি
গ ডুয়োপলি ঘ অলিগপলি
১১৮. নিচের কোনটি মনোপলি মার্কেটের বৈশিষ্ট্য? (জ্ঞান)
ক অসংখ্য ক্রেতা-বিক্রেতা থাকে
খ সমজাতীয় দ্রব্য বেচাকেনা হয়
গ একাধিক ফার্ম থাকে
 উৎপাদক এককভাবে দ্রব্যের যোগান নিয়ন্ত্রণ করে
১১৯. একচেটিয়া কারবারের মূল লক্ষ কোনটি? (উচ্চতর দক্ষতা)
ক সেবা প্রদান করা  সর্বাধিক মুনাফা অর্জন করা
গ সর্বাধিক উৎপাদন করা ঘ দ্রব্যের মূল্য নিয়ন্ত্রণ করা
১২০. একচেটিয়া বাজারে শিল্প বলতে কোনটিকে বোঝায়? (অনুধাবন)
 একটিমাত্র ফার্মকে খ একাধিক ফার্মকে
গ একাধিক উৎপাদককে ঘ অসংখ্য ক্রেতার সমাবেশকে
১২১. একচেটিয়া ফার্ম দ্রব্যের দামকে প্রভাবিত করে কীভাবে? (উচ্চতর দক্ষতা)
ক নতুন ফার্ম অন্তর্ভুক্তকরণের মাধ্যমে
খ বাজার বিশ্লেষণের মাধ্যমে
 উৎপাদনের পরিমাণ কমবেশি করার মাধ্যমে
ঘ উৎপাদন বন্ধ করে দেয়ার মাধ্যমে
১২২. নতুন ফার্মের প্রবেশ বন্ধ করতে একচেটিয়া ফার্ম কী পদক্ষেপ গ্রহণ করে? (উচ্চতর দক্ষতা)
ক পণ্যের উৎপাদন কমিয়ে দেয়  পণ্যের দাম কমিয়ে দেয়
গ আইনের আশ্রয় নেয় ঘ মুনাফার পরিমাণ বাড়িয়ে দেয়
১২৩. একচেটিয়া বাজারে নতুন ফার্ম প্রবেশ করতে পারে না কেন? (অনুধাবন)
 লোকসানের ভয়ে খ সরকারের বিধিনিষেধ থাকায়
গ আইনগত বাধা থাকায় ঘ ক্রেতার সংখ্যা কম হওয়ায়
বহুপদী সমাপ্তিসূচক বহুনির্বাচনি প্রশ্নোত্তর
১২৪. একচেটিয়া বাজারে গড় আয় ও প্রান্তিক আয় রেখার বৈশিষ্ট্য হলো (অনুধাবন)
র. দুটি রেখাই ঊর্ধ্বগামী
রর. দুটি রেখাই নিম্নগামী
ররর. প্রান্তিক আয় রেখা সবচেয়ে নিচে থাকে
নিচের কোনটি সঠিক?
ক র খ রর গ র ও ররর  রর ও ররর
১২৫. একচেটিয়া বাজারের বৈশিষ্ট্য হলো (জ্ঞান)
র. নিকট পরিবর্তক দ্রব্যের উপস্থিতি থাকে
রর. একজন বিক্রেতা ও অসংখ্য ক্রেতা থাকে
ররর. নতুন ফার্মের প্রবেশের সুযোগ নেই
নিচের কোনটি সঠিক?
ক র ও রর খ র ও ররর  রর ও ররর ঘ র, রর ও ররর
১২৬. একচেটিয়া ফার্ম দ্রব্যের দামকে প্রভাবিত করে (অনুধাবন)
র. উৎপাদন বৃদ্ধি করে
রর. উৎপাদন হ্রাস করে
ররর. উৎপাদন অপরিবর্তিত রেখে
নিচের কোনটি সঠিক?
 র ও রর খ র ও ররর গ রর ও ররর ঘ র, রর ও ররর
১২৭. একচেটিয়া শিল্পে নতুন ফার্ম প্রবেশ করতে পারে না, কারণ (উচ্চতর দক্ষতা)
র. লোকসানের ভয় থাকে
রর. একচেটিয়া ফার্ম পণ্যের দাম কমিয়ে দেয়
ররর. সরকার বিধিনিষেধ আরোপ করে
নিচের কোনটি সঠিক?
 র ও রর খ র ও ররর গ রর ও ররর ঘ র, রর ও ররর
১২৮. একচেটিয়া ফার্মে মুনাফা অর্জন সহজ, কারণ (অনুধাবন)
র. নিকট পরিবর্তক দ্রব্য থাকে না
রর. একটির বেশি ফার্ম থাকে না
ররর. ক্রেতা-বিক্রেতা অসংখ্য থাকে
নিচের কোনটি সঠিক?
 র ও রর খ র ও ররর গ রর ও ররর ঘ র, রর ও ররর
অভিন্ন তথ্যভিত্তিক বহুনির্বাচনি প্রশ্নোত্তর
নিচের অনুচ্ছেদটি পড়ে ১২৯ ও ১৩০ নং প্রশ্নের উত্তর দাও :
রহিম গ্যাস কিনতে বাজারে গেল। বাজারে গ্যাসের দাম বেশি হওয়ায় রহিম বিক্রেতার কাছে জানতে চাইল গ্যাসের দাম বেশি কেন। বিক্রেতা তাকে বলল গ্যাসের বাজারে মাত্র একজন বিক্রেতা। তাই গ্যাসের দাম বেশি। এ বাজারে বিক্রেতা তার ইচ্ছা অনুযায়ী দ্রব্যের দাম ও যোগান নিয়ন্ত্রণ করে।
১২৯. রহিমের পণ্য কোন বাজারে বিক্রি হয়? (প্রয়োগ)
 একচেটিয়া খ পূর্ণ প্রতিযোগিতার
গ একচেটিয়ামূলক ঘ অলিগপলি
১৩০. এ ধরনের আরও কিছু বাজারের উদাহরণ হলো (অনুধাবন)
র. বিদ্যুৎ
রর. বাংলাদেশ অক্সিজেন
ররর. শেয়ার
নিচের কোনটি সঠিক?
 র ও রর খ র ও ররর গ রর ও ররর ঘ র, রর ও ররর

 একচেটিয়া প্রতিযোগিতা বাজার ও অলিগপলি বাজার  বোর্ড বই, পৃষ্ঠা- ৫৪ ও ৫৫
 দ্রব্য সমজাতীয় অথচ পৃথক করা যায় একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারে।
 বিজ্ঞাপন ব্যয় অধিক হয় একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারে।
 কতিপয় বিক্রেতার বাজারকে বলে অলিগপলি বাজার।
 এক ফার্ম অন্য ফার্মের আচরণ দ্বারা প্রভাবিত হয় অলিগপলি বাজারে।
 অলিগপলি বাজারের বৈশিষ্ট্য ৪ ধরনের।
 ক্রেতা আকর্ষণ করার জন্য বিজ্ঞাপনের আশ্রয় নেয় অলিগপলি বাজার।
সাধারণ বহুনির্বাচনি প্রশ্নোত্তর
১৩১. একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারে মোট উৎপাদনের সামান্যতম অংশ কে নিয়ন্ত্রণ করতে পারে? (জ্ঞান)
 ফার্ম খ শিল্প গ ক্রেতা ঘ বিক্রেতা
১৩২. কারা একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারে মোট উৎপাদনের ওপর উল্লেখযোগ্য প্রভাব সৃষ্টি করতে পারে না? (জ্ঞান)
ক ক্রেতা খ বিক্রেতা  ফার্ম ঘ শিল্প
১৩৩. পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক এবং একচেটিয়া বাজারের সমন্বয়ে কোন ধরনের বাজার গড়ে ওঠে? (জ্ঞান)
ক ডুয়োপলি খ মনোপলি
 একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক ঘ অলিগপলি
১৩৪. নিচের কোনটি একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারের উদাহরণ? (জ্ঞান)
ক শাকসবজির  সাবানের গ উপকরণ ঘ বিদ্যুতের
১৩৫. মীনা শ্যাম্পু কিনতে বাজারে গেল। তার কেনা শ্যাম্পু কোন বাজারের পণ্য? (প্রয়োগ)
ক পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক খ একচেটিয়া
 একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক ঘ অলিগপলি
১৩৬. একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারে কোনো পণ্যের চাহিদা কখনই শূন্য হয় না কেন? (অনুধাবন)
ক উৎপাদন বেশি হয় বলে  ভক্ত ক্রেতাদের জন্য
গ সরকার ভর্তুকি দেয় বলে ঘ একাধিক ফার্ম থাকে বলে
১৩৭. একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারে অনেক ক্ষেত্রে জোট বা দলভুক্ত ফার্ম থাকে কেন? (অনুধাবন)
 পণ্যের মূল্যের উপর কোনো ফার্ম প্রভাব সৃষ্টি করতে পারে না বলে
খ পণ্যের চাহিদা নিরূপণ করতে পারে না বলে
গ পণ্যের সরবরাহ বাড়ানোর জন্য
ঘ পণ্যের মান উন্নয়নের জন্য
১৩৮. কোন বাজারের উৎপাদিত দ্রব্য ভিন্ন থাকে? (জ্ঞান)
ক পূর্ণ প্রতিযোগিতার খ স্থানীয়
 একচেটিয়ামূলক প্রতিযোগিতা ঘ দ্বিপাক্ষিক একচেটিয়া
১৩৯. কোন বাজারের শিল্পে ফার্মের অবাধ প্রবেশ বা প্রস্থান বাধাহীন থাকে? (জ্ঞান)
ক দ্বিপাক্ষিক একচেটিয়া খ মনোপলি
 একচেটিয়ামূলক প্রতিযোগিতা ঘ পূর্ণ প্রতিযোগিতার
১৪০. একচেটিয়ামূলক প্রতিযোগিতা বাজারে স্বল্পকালে ফার্ম কী ধরনের মুনাফা অর্জন করে? (জ্ঞান)
ক স্বাভাবিক  অস্বাভাবিক
গ সর্বোচ্চ ঘ ক্ষতি স্বীকার করে
১৪১. কোন বাজারে দ্রব্য পৃথকীকরণ করা যায়? (জ্ঞান)
ক একচেটিয়া খ পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক
 একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক ঘ অলিগপলি
১৪২. একচেটিয়া প্রতিযোগিতার উদ্ভবের কারণ কী? (অনুধাবন)
ক সমজাতীয় দ্রব্যের উপস্থিতি  দ্রব্যের গুণগত ও বাহ্যিক দিকের ভিন্নতা
গ অসংখ্য ক্রেতার সমাবেশ ঘ বিকল্প কোনো দ্রব্যের অনুপস্থিতি
১৪৩. একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারে ফার্মসমূহ বিজ্ঞাপন প্রচার করে কেন? (অনুধাবন)
ক সেবা প্রদানের লক্ষ্যে  পণ্যের বিক্রি বাড়াতে
গ বিক্রয়জনিত ব্যয় কমাতে ঘ আনুষঙ্গিক মুনাফা অর্জনের লক্ষ্যে
১৪৪. একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারে ফার্মসমূহ প্রতিযোগিতার জন্য কী করে? (অনুধাবন)
 বিজ্ঞাপন প্রচার করে খ স্বাভাবিক মুনাফা অর্জন করে
গ উৎপাদনের পরিমাণ বৃদ্ধি করে ঘ পণ্যের দাম বৃদ্ধি করে
১৪৫. একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারে বিক্রয়জনিত ব্যয় বেশি হয় কেন? (অনুধাবন)
ক ফার্মের সংখ্যাধিক্যের কারণে খ ক্রেতার সংখ্যা কম হওয়ায়
 বিজ্ঞাপনের খরচ যুক্ত হওয়ায় ঘ প্রতিযোগিতা বেশি থাকায়
১৪৬. অন্যান্য বাজারের সাথে একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারের সাদৃশ্য রয়েছে নিচের কোন দিক থেকে? (প্রয়োগ)
ক ক্রেতা-বিক্রেতার সংখ্যায় খ ফার্মের প্রবেশাধিকারে
গ পণ্যের উৎপাদনের পরিমাণে  সর্বোচ্চ মুনাফা অর্জনে
১৪৭. কোন সময়ে একচেটিয়ামূলক প্রতিযোগিতা বাজারে ফার্মের ভারসাম্য পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারের মতো থাকে? (জ্ঞান)
ক অতি স্বল্পকালে খ স্বল্পকালে
 দীর্ঘকালে ঘ অতি দীর্ঘকালে
১৪৮. একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারের পণ্যকে যা করা যায় না তা কী? (অনুধাবন)
ক বিক্রয় খ ক্রয়
 পূর্ণ অনুকরণ ঘ উৎপাদন
১৪৯. পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারের সাথে একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারর কোন দিক থেকে সাদৃশ্য রয়েছে? (উচ্চতর দক্ষতা)
 স্বাভাবিক মুনাফা অর্জনের দিক থেকে
খ সমজাতীয় দ্রব্য বেচাকেনার দিক থেকে
গ অনুরূপতা ও সাদৃশ্যের দিক থেকে
ঘ গড় আয় রেখার প্রকৃতির দিক থেকে
১৫০. অলিগপলি বাজারে কয়জন বিক্রেতা থাকেন? (জ্ঞান)
ক অসংখ্য খ একজন
গ দুজন  কতিপয়
১৫১. অলিগপলি বাজারের বৈশিষ্ট্য কোনটি? (জ্ঞান)
 সিদ্ধান্ত গ্রহণে প্রতিদ্ব›দ্বী ফার্মের ভ‚মিকা বিদ্যমান
খ দ্রব্যসমূহ সমজাতীয় নয়
গ বিজ্ঞাপন দ্বারা প্রভাবিত নয়
ঘ ক্রেতা-বিক্রেতার সংখ্যা অনেক
বহুপদী সমাপ্তিসূচক বহুনির্বাচনি প্রশ্নোত্তর
১৫২. একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারের বৈশিষ্ট্য হলো- (অনুধাবন)
র. উৎপাদিত দ্রব্যের পৃথকীকরণ করা যায়
রর. অসংখ্য ফার্মের উপস্থিতি থাকে
ররর. সম্পূর্ণ সমজাতীয় পণ্যের বেচাকেনা হয়
নিচের কোনটি সঠিক?
 র ও রর খ র ও ররর গ রর ও ররর ঘ র, রর ও ররর
১৫৩. একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারের পণ্যসমূহ- (অনুধাবন)
র. সমজাতীয় অথচ পৃথকীকরণ করা যায়
রর. ভিন্নজাতীয় অথচ পৃথকীকরণ করা যায় না
ররর. সদৃশ হলেও অভিন্ন নয়
নিচের কোনটি সঠিক?
ক র ও রর  র ও ররর গ রর ও ররর ঘ র, রর ও ররর
১৫৪. একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারের দ্রব্যসমূহ পৃথক হয়ে থাকে (অনুধাবন)
র. গুণগত দিক থেকে
রর. বাহ্যিক দিক থেকে
ররর. পরিমাণগত দিক থেকে
নিচের কোনটি সঠিক?
 র ও রর খ র ও ররর গ রর ও ররর ঘ র, রর ও ররর
১৫৫. একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারে ফার্মসমূহ বিজ্ঞাপন প্রচার করে (অনুধাবন)
র. প্রতিযোগিতার জন্য
রর. পণ্যের বিক্রি বাড়াতে
ররর. ক্রেতাকে আকৃষ্ট করতে
নিচের কোনটি সঠিক?
ক র ও রর খ র ও ররর গ রর ও ররর  র, রর ও ররর
১৫৬. একচেটিয়া বাজারে একজন বিক্রেতা অন্য বিক্রেতার উৎপাদিত পণ্য পূর্ণ অনুকরণ করতে না পারার ফলে (উচ্চতর দক্ষতা)
র. প্রত্যেক বিক্রেতা নিজ নিজ দ্রব্যের যোগান নিয়ন্ত্রণ করতে পারে
রর. প্রত্যেক বিক্রেতা স্বাভাবিক মুনাফা অর্জন করতে পারে
ররর. প্রত্যেক ফার্ম মূল্য নিয়ন্ত্রণ করতে পারে
নিচের কোনটি সঠিক?
ক র ও রর  র ও ররর গ রর ও ররর ঘ র, রর ও ররর
১৫৭. নিচের যেটি অপূর্ণ প্রতিযোগিতার বাজারের শ্রেণিভুক্ত (উচ্চতর দক্ষতা)
র. একচেটিয়া
রর. একচেটিয়া প্রতিযোগিতার
ররর. কয়েকজন বিক্রেতার
নিচের কোনটি সঠিক?
ক র ও রর খ র ও ররর গ রর ও ররর  র, রর ও ররর
১৫৮. একচেটিয়া বাজারের ফার্মগুলো একই ধরনের হয়। কারণ (প্রয়োগ)
র. ব্যয় ও চাহিদা রেখা একই
রর. গ্রæপ অন্তর্ভুক্ত
ররর. পণ্যের মূল্য একই
নিচের কোনটি সঠিক?
 র ও রর খ র ও ররর গ রর ও ররর ঘ র, রর ও ররর
১৫৯. একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারের ক্ষেত্রে পরিলক্ষিত হয় (প্রয়োগ)
র. একচেটিয়া বাজারের কিছু বৈশিষ্ট্য
রর. পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারের কিছু বৈশিষ্ট্য
ররর. অলিগপলি বাজারের সকল বৈশিষ্ট্য
নিচের কোনটি সঠিক?
 র ও রর খ র ও ররর গ রর ও ররর ঘ র, রর ও ররর
১৬০. একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারে প্রতিযোগিতার উদ্ভবের কারণ হলো (অনুধাবন)
র. দ্রব্যসমূহের গুণগত পার্থক্য
রর. একাধিক ফার্মের উপস্থিতি
ররর. অসংখ্য ক্রেতার সমাবেশ
নিচের কোনটি সঠিক?
 র ও রর খ র ও ররর গ রর ও ররর ঘ র, রর ও ররর
১৬১. অলিগপলি বাজারের বৈশিষ্ট্য হলো (অনুধাবন)
র. দ্রব্যসমূহ সমজাতীয়
রর. বিক্রেতার সংখ্য অনেক
ররর. ক্রেতার সংখ্যা অনেক
নিচের কোনটি সঠিক?
ক র ও রর  র ও ররর গ রর ও ররর ঘ র, রর ও ররর
১৬২. অলিগপলি বাজারের দ্রব্যের বৈশিষ্ট্য হলো (উচ্চতর দক্ষতা)
র. দ্রব্যসমূহ সমজাতীয়
রর. দ্রব্যসমূহ সামান্য পৃথকীকরণ করা যায়
ররর. দ্রব্যসমূহের যোগান সীমাবদ্ধ
নিচের কোনটি সঠিক?
 র ও রর খ র ও ররর গ রর ও ররর ঘ র, রর ও ররর
অভিন্ন তথ্যভিত্তিক বহুনির্বাচনি প্রশ্নোত্তর
নিচের অনুচ্ছেদটি পড়ে ১৬৩ ও ১৬৪ নং প্রশ্নের উত্তর দাও :
শাম্মী আকতার তার পরিবারের জন্য সবসময় ডাভ সাবান কিনে থাকেন। কিন্তু এ মাসে তিনি লাক্স সাবান কিনেছেন। কারণ ডাভ সাবানের দাম আগের থেকে বেশি বৃদ্ধি পেয়েছে। অবশ্য তার প্রতিবেশী ঊর্মি সাহা দাম বাড়লেও বরাবরের মতো ডাভ সাবানই কিনেছেন।
১৬৩. অনুচ্ছেদে কোন ধরনের বাজারের ইঙ্গিত প্রদান করা হয়েছে? (প্রয়োগ)
ক পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক খ একাচেটিয়া
 একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক ঘ অলিগপলি
১৬৪. ঊর্মি সাহার মতো ক্রেতার কারণেই ডাভ সাবানের (উচ্চতর দক্ষতা)
র. চাহিদা কখনো শূন্য হবে না
রর. চাহিদা কখনো পরিবর্তিত হবে না
ররর. চাহিদা রেখার আকৃতি এক রকম হবে না
নিচের কোনটি সঠিক?
ক র ও রর  র ও ররর গ রর ও ররর ঘ র, রর ও ররর

বোর্ড ও সেরা স্কুলের সৃজনশীল প্রশ্ন ও উত্তর
প্রশ্ন- ১  একচেটিয়া বাজার

সুমী ‘অ’ শহরে ফুল সরবরাহ করে। শহরের একটি কলেজের নবীন বরণ অনুষ্ঠানে অনেক ফুলের প্রয়োজন হয়। ফুল কিনতে গেলে সুমী বেশি দাম দাবি করে। উপায় না থাকায় কলেজ কর্তৃপক্ষকে বেশি দামেই ফুল কিনতে হয়। কিন্তু ‘ই’ শহরে অনেক ফুলের দোকান রয়েছে। ফলে সেখানে ক্রেতারা ফুলের গুণাগুণ ও দর কষাকষি করে ফুল কিনতে পারেন। [স. বো. ’১৬]
ক. একচেটিয়া বাজার কী? ১
খ. ফার্ম ও শিল্পের মধ্যে পার্থক্য কী? ২
গ. সুমীর ফুলের দোকান অর্থনীতিতে কোন ধরনের বাজারকে নির্দেশ করে – ব্যাখ্যা কর। ৩
ঘ. উভয় শহরের ফুলের বিক্রেতারা কী একই মুনাফা অর্জন করবে? মতামত দাও। ৪

ক কোনো দ্রব্যের যদি কেবল একজন উৎপাদনকারী বা বিক্রেতা থাকে যার অসংখ্য ক্রেতা থাকে এবং দ্রব্যটির কোনো বিকল্প পরিবর্তক দ্রব্য না থাকে তাহলে তার বাজারকে একচেটিয়া বাজার বলে।
খ একটি মাত্র দ্রব্য উৎপাদন করে এমন একটি প্রতিষ্ঠানকে ফার্ম বলে। অন্যদিকে একই ধরনের পণ্য উৎপাদনকারী ফার্মের সমষ্টিকে শিল্প বলে। যেমন দর্শনা চিনি কল একটি ফার্ম। কিন্তু দেশের সব চিনিকলগুলো নিয়ে চিনি শিল্প।
গ সুমীর ফুলের দোকান অর্থনীতিতে একচেটিয়া বাজারকে নির্দেশ করে। যখন কোনো ফার্ম কোনো একটি দ্রব্য উৎপাদন করে অসংখ্য ক্রেতাকে যোগান দেয় তখন সেই ফার্মকে একচেটিয়া কারবারি এবং যে বাজারে ঐ দ্রব্যটি কেনা-বেচা হয় সেই বাজারকে একচেটিয়া বাজার বলা হয়। যে দ্রব্য বিক্রয়ে যে ফার্ম একচেটিয়া অধিকার লাভ করে সেই ফার্ম বাজারে সেই দ্রব্যের যোগান নিয়ন্ত্রণ করে। একচেটিয়া ফার্ম এককভাবে উৎপাদন যোগান দিয়ে থাকে। একমাত্র উৎপাদক হওয়ায় খুব সহজেই দ্রব্যের দাম অথবা যোগান নিয়ন্ত্রণ করতে পারে। উদ্দীপকে ‘অ’ শহরে সুমী এককভাবে ফুল সরবরাহ করে। এক্ষেত্রে তার দোকান ‘অ’ শহরে ফুলের বাজারের একমাত্র ফার্ম হিসেবে বিবেচ্য। উদ্দীপকে আরও লক্ষ্যণীয় সুমী সুযোগ বুঝে শহরের একটি কলেজের নবীন বরণ অনুষ্ঠানে ফুলের প্রয়োজন হলে বেশি দাম দাবী করে। এক্ষেত্রে সে দাম নিয়ন্ত্রণ করছে। আবার উপায় না থাকায় কলেজ কর্তৃপক্ষ বেশি দামেই ফুল কিনে। ফলে সুমীর সর্বোচ্চ মুনাফা হয়। এসব বৈশিষ্টের আলোকে নিশ্চিতরূপেই বলা যায়, সুমীর ফুলের দোকান অর্থনীতিতে একচেটিয়া বাজারকে নির্দেশ করে।
ঘ উভয় শহরের ফুলের বিক্রেতারা তথা উদ্দীপকে ‘অ’ ও ‘ই’ শহরের ফুলের বিক্রেতারা একই মুনাফা অর্জন করবে না। ‘অ’ শহরের ফুলের বিক্রেতা একচেটিয়া বাজারের মাধ্যমে মুনাফা অর্জন করে। একচেটিয়া কারবারির লক্ষ হলো সর্বাধিক মুনাফা অর্জন করা। যেমন উদ্দীপকে ‘অ’ শহরের সুমী সর্বাধিক মুনাফা অর্জন করছে। অন্যদিকে ‘ই’ শহরে অনেক ফুলের দোকান রয়েছে। সেখানে ক্রেতারা ফুলের গুণাগুণ ও দর কষাকষি করে ফুল ক্রয় করতে পারেন। অর্থাৎ ‘ই’ শহরে ফুলের পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজার বিদ্যমান। আর এ বাজারে নির্দিষ্ট দামে উৎপাদনকারী মুনাফা সর্বোচ্চকরণের প্রচেষ্টা নেয়, ‘অ’ শহরের মতো ইচ্ছামতো দাম নির্ধারণ করতে পারে না। পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারের বৈশিষ্ট্য অনুযায়ী ‘ই’ শহরের ফুলের দোকানগুলোর মূল লক্ষ্য সর্বনিম্ন ব্যয়ে সর্বোচ্চ মুনাফা অর্জন। প্রদত্ত দামে তারা মুনাফা সর্বাধিক করার চেষ্টা করলেও দীর্ঘমেয়াদে দোকানগুলো স্বাভাবিক মুনাফা অর্জন করে। উল্লেখ্য, মোট আয় ও মোট ব্যয় সমান হলে তাকে স্বাভাবিক মুনাফা বলে। ‘অ’ শহরের ফুলের বিক্রেতা যেখানে সর্বোচ্চ মুনাফা অর্জন করে ‘ই’ শহরের ফুলের বিক্রেতারা সেখানে স্বাভাবিক মুনাফা অর্জন করে। অর্থাৎ উভয় শহরের ফুলের বিক্রেতারা একই মুনাফা অর্জন করবে না।

প্রশ্ন- ২  একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজার ও একচেটিয়া বাজারের বৈশিষ্ট্য

রিমি কোল্ডক্রিম কেনার জন্য দোকানে গেলে দোকানদার তাকে চার ধরনের ক্রিম দেখায়। রিমি লক্ষ করে যে, চারটিতেই সমপরিমাণ ক্রিম রয়েছে। কিন্তু দামের ক্ষেত্রে সামান্য পার্থক্য রয়েছে। [স. বো. ’১৫]
ক. অর্থবাজার কী? ১
খ. দীর্ঘকালীন বাজার কী? ব্যাখ্যা কর। ২
গ. রিমির ক্রয়কৃত দ্রব্যটি কোন বাজারের পণ্য? ব্যাখ্যা কর। ৩
ঘ. একচেটিয়া বাজারের সাথে রিমির ক্রয়কৃত পণ্যের বাজারের পার্থক্য বিশ্লেষণ কর। ৪

ক অর্থবাজার একটি প্রক্রিয়া যেখানে অর্থের মাধ্যমে ক্রেতা-বিক্রেতার দ্রব্য বা সেবা বেচা-কেনা হয়।
খ দীর্ঘকালীন বাজার সময়ের প্রেক্ষিতে বাজারের একটি ধরন। চাহিদার যেকোনো পরিবর্তনের সাথে এ বাজারের যোগানের যেকোনো পরিবর্তন সম্ভব। এক্ষেত্রে কোনো উৎপাদক প্রতিষ্ঠান তার উৎপাদনের আয়তন এবং উপকরণের সম্পূর্ণ পরিবর্তন সাধন করতে পারে। চাহিদা বৃদ্ধি বহুদিন ধরে চলতে থাকলে উৎপাদন প্রতিষ্ঠান নতুন নতুন যন্ত্রপাতি বসিয়ে এবং অন্যান্য উপকরণের ব্যবহার পরিবর্তন করে উৎপাদন এবং যোগানের সাথে সমন্বয় করে ভারসাম্য থাকার চেষ্টা করে।
গ রিমির ক্রয়কৃত দ্রব্যটি একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারের পণ্য। একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারে পূর্ণ প্রতিযোগিতা এবং একচেটিয়া বাজারের কতিপয় বৈশিষ্ট্য একযোগে দেখা যায়। একচেটিয়া প্রতিযোগিতায় বিভিন্ন ফার্ম যে দ্রব্যগুলো উৎপাদন করে, তা সদৃশ হলেও অভিন্ন নয়। অর্থাৎ দ্রব্যের মধ্যে কিছু ভিন্নতা থাকে। আর এই দ্রব্যের পৃথকীকরণের মধ্যে একচেটিয়া বাজারের উপকরণ বিদ্যমান। আবার বহুসংখ্যক ক্রেতা-বিক্রেতা থাকায় পূর্ণ প্রতিযোগিতার উপকরণও পরিলক্ষিত হয়। সুতরাং সমজাতীয় অথচ পৃথকীকরণ করা যায় এমন সব দ্রব্য নিয়ে প্রতিযোগিতা এবং একচেটিয়া উৎপাদন সমন্বয়ে যে বাজার গড়ে ওঠে তাকে একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজার বলে। যেমন রিমির ক্রয়কৃত কোল্ডক্রিম। উদ্দীপকে দোকানদার রিমিকে বিভিন্ন কোম্পানির চার ধরনের ক্রিম দেখায়। এগুলোর ব্যবহার একই ধরনের হলেও এই ক্রিমগুলো পৃথক করা সম্ভব। যেমন মোড়ক ভিন্ন বা গন্ধ ভিন্ন ইত্যাদি। এই সব ক্রিমের যেকোনো একটির দাম বাড়লে, ক্রিমটির চাহিদা সামান্য কমতে পারে, তবে শূন্য হয় না। এই ক্রিমের ভক্ত ক্রেতা সব সময় এই ক্রিমটিই কেনে। এসব দ্রব্যের দামের পরিবর্তন হলেও ক্রেতা দ্রব্য ভোগ ও ব্যবহার ত্যাগ করে না। রিমিও তদ্রæপ চারটিতে সমপরিমাণ ক্রিম দেখে দামের ক্ষেত্রে সামান্য পার্থক্য থাকলেও দেখা যাবে তার পূর্ব থেকে পছন্দের ক্রিমটিই কিনবে। সুতরাং রিমির ক্রয়কৃত দ্রব্য তথা কোল্ডক্রিম একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারের পণ্য।
ঘ একচেটিয়া বাজারের সাথে রিমিরি ক্রয়কৃত পণ্যের বাজার তথা একচেটিয়া প্রতিযোগিতার বাজারের সাথে পার্থক্য বেশ স্পষ্ট। একচেটিয়া বাজারে একজন মাত্র উৎপাদক ও বিক্রেতা থাকে। তাই বিক্রেতা বাজারে দ্রব্যের উৎপাদন ও যোগান সম্পূর্ণরূপে নিয়ন্ত্রণ করে থাকে। অন্যদিকে একচেটিয়া প্রতিযোগিতায় ফার্মের সংখ্যা অসংখ্য। এক একটি ফার্ম বাজারে মোট উৎপাদনের একটি সামান্য অংশ নিয়ন্ত্রণ করতে পারে। ফলে কোনো ফার্মের পক্ষেই পণ্যের মূল্য বা মোট উৎপাদনের ওপর উল্লেখযোগ্য প্রভাব সৃষ্টি করা সম্ভব হয় না। একচেটিয়া ফার্ম যে দ্রব্যটি উৎপাদন ও বিক্রি করে সে দ্রব্যের তেমন কোনো পরিবর্তন দ্রব্য নেই। অর্থাৎ দ্রব্যটির সমজাতীয় বা প্রায় সমজাতীয় কোনো দ্রব্য পাওয়া যায় না। কিন্তু একচেটিয়া প্রতিযোগিতার অধীনে বিভিন্ন ফার্ম যেসব পণ্য উৎপাদন করে সেগুলো অনেকটা সদৃশ হলেও একটিকে অপরটি থেকে পৃথক করা সম্ভব। দ্রব্যগুলো গুণগত ও বাহ্যিক দিক থেকে কিছুটা পৃথক হয়ে থাকে। একচেটিয়া ফার্ম এককভাবে উৎপাদন যোগান দিয়ে থাকে। একমাত্র উৎপাদক হওয়ায় খুব সহজেই দ্রব্যের দাম অথবা যোগান নিয়ন্ত্রণ করতে পারে। তবে ফার্মটি হয় দাম অথবা যোগান নিয়ন্ত্রণ করে; একসঙ্গে দুটি নিয়ন্ত্রণ করতে পারে না। অন্যদিকে একচেটিয়া প্রতিযোগিতার বাজারে একজন বিক্রেতা অপর একজন বিক্রেতার উৎপাদিত দ্রব্য পূর্ণ অনুকরণ করতে পারে না। ফলে প্রত্যেক বিক্রেতা বা ফার্ম একচেটিয়া ফার্মের মতো নিজ নিজ দ্রব্যের যোগান বা যোগান নিয়ন্ত্রণের মাধ্যমে মূল্য নিয়ন্ত্রণ করতে পারে। একচেটিয়া শিল্পে নতুন ফার্মের প্রবেশের সুযোগ নেই। নতুন ফার্মের প্রবেশ করতে গেলে একচেটিয়া ফার্ম পণ্যের উৎপাদন বাড়িয়ে দাম কমিয়ে দেয়। সে ক্ষেত্রে নতুন ফার্ম সম্ভাব্য লোকসানের ভয়ে প্রবেশ করে না। সেজন্যই একচেটিয়া বাজারে নতুন ফার্ম প্রবেশ করতে পারে না। কিন্তু একচেটিয়া প্রতিযোগিতার ক্ষেত্রে কোনো ফার্মের শিল্পে প্রবেশ এবং প্রস্থানে কোনো বাধানিষেধ নেই। সাধারণত স্বল্পমেয়াদে কোনো ফার্ম অস্বাভাবিক মুনাফা করলে দীর্ঘকালে নতুন ফার্ম শিল্পে প্রবেশ করে। আবার কোনো ফার্ম ক্ষতির সম্মুখীন হয়ে দীর্ঘমেয়াদে শিল্প পরিত্যাগ করতে পারে। এ ব্যাপারে অভ্যন্তরীণ বা বাহ্যিক কোনো বাধা নেই। এভাবে দেখা যায় উৎপাদন, চাহিদা ও যোগান সর্বক্ষেত্রেই বৈশিষ্ট্য বিচারে একচেটিয়া বাজার ও একচেটিয়া প্রতিযোগিতা বাজারের পার্থক্য সুস্পষ্ট প্রতিভাত হয়।

প্রশ্ন- ৩  একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারে বিজ্ঞাপনের গুরুত্ব

স্কয়ার টয়লেট্রিজ লিমিটেড চাকা ওয়াশিং পাউডারের একটি চমৎকার বিজ্ঞাপন তৈরি করে। উক্ত বিজ্ঞাপনে ময়লা জামাকাপড় উত্তমরূপে ধোলাই করা হয়। এই বিজ্ঞাপনের মাধ্যমে চাকা ওয়াশিং পাউডারের বিক্রয় বৃদ্ধি পেয়েছে। [কিশোরী মোহন বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়, সিলেট]
ক. ‘গড়হড়ঢ়ড়ষু’ শব্দের অর্থ কী? ১
খ. দ্রব্যের মূল্য নির্ধারণের উপায় ব্যাখ্যা কর। ২
গ. উদ্দীপকে যে ধরনের বাজারের ইঙ্গিত রয়েছে তার ব্যাখ্যা দাও। ৩
ঘ. উদ্দীপকের শেষ লাইনটির মূল্যায়ন কর। ৪

ক ‘গড়হড়ঢ়ড়ষু’ শব্দের অর্থ একজন মাত্র বিক্রেতা।
খ দ্রব্যের মূল্য নির্ধারণের উপায় হলো ক্রেতা-বিক্রেতার মধ্যে দর কষাকষি। যেকোনো বাজারে বিক্রেতাগণ ক্রেতাদের নিকট পণ্য বা দ্রব্য সামগ্রী বিক্রি করে থাকেন। এক্ষেত্রে দ্রব্যের মূল্য নির্ধারণ অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। ক্রেতা-বিক্রেতার মধ্যে দর কষাকষির মাধ্যমে এই মূল্য নির্ধারিত হয় এবং এই নিয়মকে দামের নিয়ম বলে। এ দামের ওপরই দ্রব্যের বেচাকেনা নির্ভর করে। তবে কোনো কোনো পণ্যের বাজারে দাম বা মূল্য ফার্ম কর্তৃক পূর্ব নির্ধারিত থাকে।
গ উদ্দীপকে একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারের ইঙ্গিত রয়েছে। একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারে পূর্ণ প্রতিযোগিতা এবং একচেটিয়া বাজারের কতিপয় বৈশিষ্ট্য একযোগে দেখা যায়। এই বাজারের অন্যতম দুটি বৈশিষ্ট্য হলো- উৎপাদিত দ্রব্যের পৃথকীকরণ করা যায় এবং বহুসংখ্যক ক্রেতা-বিক্রেতা থাকায় পূর্ণ প্রতিযোগিতা বিদ্যমান। উদ্দীপকে বর্ণিত বাজার ব্যবস্থায়ও এ বৈশিষ্ট্য দুটি বিদ্যমান। উদ্দীপকে কাপড় কাচা পাউডারের বাজার বর্ণিত হয়েছে। স্কয়ার টয়লেট্রিজ লিমিটেডের একটি পণ্য হলো চাকা ওয়াশিং পাউডার। এখন বাজারে অন্যান্য কোম্পানি এরূপ পণ্য তথা কাপড় কাচার পাউডার রয়েছে। এক্ষেত্রে বিভিন্ন কোম্পানির পাউডার অনেকটা সদৃশ হলেও একটিকে অপরটি থেকে পৃথক করা সম্ভব। কারণ পণ্যগুলো গুণগত ও বাহ্যিক দিক থেকে কিছুটা পৃথক হয়ে থাকে। আবার ওয়াশিং পাউডার উৎপাদনকারী কোম্পানি যেমন সংখ্যায় অনেক তেমনি ক্রেতার সংখ্যাও বহু। এর ফলে এ বাজারে পূর্ণ প্রতিযোগিতা বিদ্যমান থাকে। এসব বৈশিষ্ট্যই একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারের পণ্যের বৈশিষ্ট্যকে নির্দেশ করে। তাই বলা যায়, উদ্দীপকটি একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারের দৃষ্টান্ত উপস্থাপন করেছে।
ঘ উদ্দীপকের শেষ লাইনে একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজার ব্যবস্থায় বিজ্ঞাপনের যে গুরুত্ব ফুটে উঠেছে তা অত্যন্ত তাৎপর্যপূর্ণ। একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারে পণ্যের বিজ্ঞাপন একটি গুরুত্বপূর্ণ স্থান দখল করে আছে। প্রতিটি ফার্ম বা কোম্পানি তাদের পণ্যের প্রচার ও প্রসারে বিজ্ঞাপন প্রদান করে। এর মাধ্যমে তার পণ্যের বিক্রয় বৃদ্ধি করতে প্রয়াস চালান। ভালোভাবে বিজ্ঞাপন প্রচার করতে পারলে এক্ষেত্রে সফলতাও অর্জিত হয়। উদ্দীপকে বর্ণিত স্কয়ার টয়লেট্রিজ লিমিটেড কোম্পানি তাদের উৎপাদিত পণ্য চাকা ওয়াশিং পাউডারের আকর্ষণীয় বিজ্ঞাপন তৈরি করে এবং তা বিভিন্ন মিডিয়ার মাধ্যমে প্রচার করে। এর ফলে তাদের পণ্যের বিক্রয়জনিত ব্যয় যে কিছুটা বৃদ্ধি পায় তা সহজেই অনুমেয়। তবে বিজ্ঞাপন প্রচারের ফলে চাকা ওয়াশিং পাউডারের বিক্রয় বৃদ্ধি পাওয়ায় এক্ষেত্রে উৎপাদনকারী ফার্মটি লাভবান হচ্ছে। উদ্দীপকের শেষ লাইনে এ তথ্যই উপস্থাপন করা হয়েছে। এ থেকে বোঝা যায়, একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারে পণ্যের বিজ্ঞাপন অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। উপর্যুক্ত আলোচনায় একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারে পণ্যের বিজ্ঞাপনের কার্যকারিত সুস্পষ্টরূপে প্রতীয়মান হয়। এ থেকে নিঃসন্দেহে বলা যায়, বিজ্ঞাপন পণ্যের বিক্রয় বৃদ্ধিতে অপরিহার্য।
 মাস্টার ট্রেইনার প্রণীত সৃজনশীল প্রশ্ন ও উত্তর
প্রশ্ন- ৪  বাজারের বিকাশ

শামীম মিয়া প্রতিদিন সকালে ঘুম থেকে উঠে বড় একটি ঝুড়িতে দুই-তিন পদের সবজি নিয়ে বাজারে বিক্রির জন্য যান। প্রতিদিনই অল্প সময়ের মধ্যে তার সব সবজি বিক্রি হয়ে যায়। কোনো কোনো দিন চাহিদা বুঝে তিনি সবজির দাম বাড়িয়ে দেন। তারপরও অতি দ্রæত সব সবজি বিক্রি হয়ে যায়। প্রায় দিনই তিনি আরও বেশি সবজি না আনতে পারায় আফসোস করেন।
ক. শিল্প কী? ১
খ. দীর্ঘকালীন বাজার বলতে কী বোঝায়? ২
গ. উদ্দীপকে কোন ধরনের বাজারের চিত্র ফুটে উঠেছে? ব্যাখ্যা কর। ৩
ঘ. শামীম মিয়া যদি দীর্ঘকালীন বাজার ব্যবস্থার সাথে জড়িত থাকতেন তাহলে তাকে আর আফসোস করতে হতো না- পাঠ্যবইয়ের আলোকে মন্তব্যটি বিশ্লেষণ কর। ৪

ক শিল্প হলো অর্থনৈতিক এমন একটি প্রতিষ্ঠান যার অধীনে অসংখ্য ফার্ম থাকতে পারে।
খ দীর্ঘকালীন বাজার বলতে এমন বাজার ব্যবস্থা বোঝায় যেখানে চাহিদার যেকোনো পরিবর্তনের সাথে যোগানের যেকোনো পরিবর্তন সম্ভব। দীর্ঘকালীন বাজারের ক্ষেত্রে কোনো উৎপাদক প্রতিষ্ঠান তার উৎপাদনের আয়তন এবং উপকরণের সম্পূর্ণ পরিবর্তন সাধন করতে পারে। চাহিদা বৃদ্ধি বহুদিন ধরে চলতে থাকলে উৎপাদক প্রতিষ্ঠান নতুন যন্ত্রপাতি বসিয়ে এবং অন্যান্য উপকরণের ব্যবহার পরিবর্তন করে উৎপাদন ও যোগানের মধ্যে সমন্বয় সাধন করে।
গ উদ্দীপকে অতি স্বল্পকালীন বাজার ব্যবস্থার চিত্র ফুটে উঠেছে। অতি স্বল্পকালীন বাজারের ক্ষেত্রে কোনো নির্দিষ্ট সময়ে বাজারে দ্রব্যের যোগান স্থির থাকে। চাহিদার হ্রাস বৃদ্ধি হলেও পণ্যের যোগান পরিবর্তন করা যায় না। সময়ের স্বল্পতার প্রেক্ষিতেই মূলত যোগানের কোনোরূপ পরিবর্তন করা সম্ভবপর হয় না। যদিও পণ্যের চাহিদা ও দাম স্বল্প সময়ের মধ্যেই বৃদ্ধি পেয়ে থাকে। উদ্দীপকের শামীম মিয়া একজন সবজি বিক্রেতা। প্রতিদিন সকালে তিনি নির্দিষ্ট পরিমাণ সবজি বিক্রির উদ্দেশ্যে বাজারে নিয়ে যান এবং অল্প সময়ের মধ্যে তার সব সবজি বেশির ভাগ দিনই বিক্রি হয়ে যায়। সুতরাং সময়ের প্রেক্ষিতে দেখা যাচ্ছে, শামীম মিয়ার বাজারের ব্যাপ্তি অতি স্বল্পকালীন। আর এ কারণেই তার বাজারের যোগান স্থির। সবজির চাহিদা রয়েছে প্রচুর কিন্তু তা সত্তে¡ও তিনি ইচ্ছা করলেই যোগান বাড়াতে পারেন না। কোনো কোনো দিন চাহিদা বেশি দেখলে তিনি সবজির দাম বৃদ্ধি করেন কিন্তু সময়ের ব্যাপ্তির কথা চিন্তা করে তিনি যোগানের পরিবর্তন করতে পারেন না। তাই বৈশিষ্ট্যগত দিক বিবেচনায় উদ্দীপকের রহমত মিয়ার সকালে সবজি বিক্রয়কে অতি স্বল্পকালীন বাজারের অন্তর্ভুক্ত করা যায়।
ঘ উদ্দীপকের শামীম মিয়া অতি স্বল্পকালীন বাজার ব্যবস্থার সাথে জড়িত থাকায় তার পণ্যের যোগান বাড়াতে পারেন না। দীর্ঘকালীন বাজার ব্যবস্থার সাথে সম্পৃক্ত থাকলে তিনি এই অসুবিধা সহজেই কাটিয়ে উঠতে পারতেন। দীর্ঘকালীন বাজার ব্যবস্থার প্রধান বৈশিষ্ট্য হলো চাহিদার যেকোনো পরিবর্তনের সথে যোগানেরও যেকোনো পরিবর্তন সম্ভব। অতি স্বল্পকালীন বাজারের ক্ষেত্রে যোগান পরিবর্তনে যে বাধার সম্মুখীন হতে হয় তা দীর্ঘকালীন বাজার ব্যবস্থায় সম্পূর্ণ অনুপস্থিত। এক্ষেত্রে কোনো উৎপাদক প্রতিষ্ঠান তার উৎপাদনের আয়তন এবং উপকরণের সম্পূর্ণ পরিবর্তন সাধন করতে পারে। শামীম মিয়াকে প্রতিদিন সকালে সবজি বিক্রয় করার পর বেশি সবজির যোগান না থাকায় আফসোস করতে হয়। প্রকৃতপক্ষে তিনি ইচ্ছা করলেও সবজির যোগান বাড়াতে পারবেন না। কারণ সকালের কাঁচাবাজার অতি স্বল্পকালীন সময় স্থায়ী হওয়ায় সবজির যোগান বেশি হলে তিনি লোকসানেরও সম্মুখীন হতে পারেন। কিন্তু তিনি যদি দীর্ঘকালীন বাজার ব্যবস্থার সাথে জড়িত থাকতেন তাহলে তাকে এই সমস্যায় পড়তে হতো না। অর্থাৎ তিনি চাহিদা বৃদ্ধির সাথে সাথে উৎপাদন এবং যোগানের মধ্যে সহজেই ভারসাম্য আনয়ন করতে পারতেন। দীর্ঘকালীন বাজারের বৈশিষ্ট্য বিবেচনায় পরিশেষে বলা যায়, প্রশ্নোক্ত মন্তব্যটি যথার্থ।

প্রশ্ন- ৫  প্রতিযোগিতার ভিত্তিতে বাজার

ফরিদ উদ্দিন ঢাকাতে থাকেন। চাকরির প্রয়োজনে প্রতি মাসেই তাকে যশোর যেতে হয়। ঢাকা থেকে যশোরের অনেক বাস আছে। বিভিন্ন কোম্পানির বাসের টিকিটের দামে কিছুটা মিল আছে। এ সম্পর্কে ফরিদ উদ্দিনের ধারণা থাকায় নিজের পছন্দমতো বাসে ভ্রমণ করতে তার কোনো অসুবিধা হয় না। গত মাস থেকে তিনি ‘গতি পরিবহন’ নামের নতুন একটি পরিবহন বেছে নিয়েছেন। কোম্পানিটি কিছুদিন হলো তাদের সার্ভিস চালু করেছে।
ক. কোন বাজারে নতুন ফার্মের প্রবেশের সুযোগ নেই? ১
খ. পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজার বলতে কী বোঝায়? ২
গ. উদ্দীপকে কোন ধরনের বাজার পরিলক্ষিত হয়? ব্যাখ্যা কর। ৩
ঘ. এ ধরনের বাজারের পরিধি বাংলাদেশের বাজার ব্যবস্থার প্রেক্ষাপটে আলোচনা কর। ৪

ক একচেটিয়া বাজারে নতুন ফার্মের প্রবেশের সুযোগ নেই।
খ পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজার বলতে এমন বাজার ব্যবস্থা বোঝায় যেখানে অসংখ্য ক্রেতা-বিক্রেতা সমজাতীয় দ্রব্য কেনাবেচা করেন। পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারে পণ্যের এককের গুণাগুণ এবং মূল্য সম্পর্কে ক্রেতা-বিক্রেতা পুরোপুরি অবহিত থাকে। এক্ষেত্রে বাজারে চাহিদা ও যোগান দ্বারা পণ্যের মূল্য একবার নির্ধারিত হলে কোনো ক্রেতা বা বিক্রেতার পক্ষে তা পরিবর্তন করা সম্ভব হয় না। কারণ, এক্ষেত্রে একজন ক্রেতার চাহিদা বা একজন বিক্রেতার যোগান বাজারের একটা নগণ্য অংশ মাত্র। বিশুদ্ধ পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজার খুঁজে পাওয়া দুষ্কর।
গ উদ্দীপকে পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজার ব্যবস্থা পরিলক্ষিত হয়। পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজার ব্যবস্থায় অসংখ্য ক্রেতা এবং বিক্রেতা সমজাতীয় পণ্য বেচাকেনা করেন। এ ধরনের বাজারের অন্যতম বৈশিষ্ট্য হলো পণ্যের এককের গুণাগুণ এবং মূল্য সম্পর্কে ক্রেতা ও বিক্রেতা অবহিত থাকেন। আবার এ ধরনের বাজারের অধীনে শিল্পে ফার্মসমূহের প্রবেশ অবাধ হয়। উদ্দীপকে এ দুটি বৈশিষ্ট্যই পরিলক্ষিত হয়। উদ্দীপকে বাস পরিবহনের কথা উল্লেখ করা হচ্ছে, যা মূলত সেবাধর্মী পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারের অন্তর্ভুক্ত। উদ্দীপকের বর্ণনা থেকে জানা যায়, ফরিদ উদ্দিন ঢাকা থেকে যশোরগামী অসংখ্য পরিবহনের ভাড়া সম্পর্কে মোটামুটি অবগত। এ কারণে বিভিন্ন পরিবহনের ভাড়ায় হেরফের থাকলেও তিনি পছন্দমতো পরিবহনে ভ্রমণ করতে পারেন। এক্ষেত্রে মূলত পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারের পণ্যের মূল্য সম্পর্কে ক্রেতার অবগত থাকার দিকটি প্রকাশ পায়। আবার দেখা যায়, ঢাকা-যশোর রুটে যাতায়াতের জন্য ‘গতি পরিবহন’ নামে একটি নতুন কোম্পানি বাস নামিয়েছে। এর মাধ্যমে পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারের অধীনে শিল্পে নতুন ফার্মের অবাধে প্রবেশের বৈশিষ্ট্যটি প্রকাশ পেয়েছে। প্রকৃতপক্ষে পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারে ফার্মসমূহের প্রবেশ ও প্রস্থানে কোনোরূপ বাধা থাকে না। সুতরাং বলা যায়, উদ্দীপকে বাস পরিবহন খাতের মাধ্যমে যে বাজার ব্যবস্থা ফুটিয়ে তোলা হয়েছে তা বৈশিষ্ট্যগত দিক বিচারে সেবাধর্মী পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারের উদাহরণ।
ঘ বাংলাদেশের বাজার ব্যবস্থা বিশ্লেষণ করলে দেখা যায়, উদ্দীপকে ইঙ্গিতকৃত পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজার বাংলাদেশে খুব কমই আছে। বাংলাদেশে বিশুদ্ধ পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজার নেই। এর কারণ হলো বিশুদ্ধ পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারের বৈশিষ্ট্যসমূহ সব ক্ষেত্রে পূরণ হয় না। এ কারণে বাংলাদেশে পূর্ণ প্রতিযোগিতার কাছাকাছি বাজার লক্ষ করা যায়। উদ্দীপকে উল্লিখিত বাস পরিবহনের বাজারও অনুরূপ এবং পরিধিগত দিক বিবেচনায় এ ধরনের বাজারের সংখ্যা খুব একটা বেশি নয়। পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারের একটি অন্যতম বৈশিষ্ট্য হলো পণ্যের এককের গুণাগুণ ও মূল্য সম্পর্কে ক্রেতা-বিক্রেতা পুরোপুরি অবহিত থাকবে। কিন্তু বাংলাদেশে বিদ্যমান পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারসমূহের ক্ষেত্রে এই শর্ত পূরণ হওয়াটা বেশ কঠিন। যেমন, উদ্দীপকের বাস পরিবহনের বাজারটিই যদি আমরা বিশ্লেষণ করি তাহলে সুস্পষ্টরূপে প্রতীয়মান হয় যে, অসংখ্য বাসের টিকিটের দাম সম্পর্কে সকল যাত্রীর অবগত থাকা সম্ভব নয়। এ কারণেই পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারের মূল্য অপরিবর্তনযোগ্য বৈশিষ্ট্যটিও এক্ষেত্রে কার্যকর থাকে না। ফলে বাংলাদেশে বিদ্যমান এ ধরনের বাজারগুলো পূর্ণ প্রতিযোগিতার কাছাকাছি বাজার। সেবার ক্ষেত্রে এ ধরনের বাজারের উদাহরণ হলো বাস ও রিকশা পরিবহন। বাংলাদেশের বাজার ব্যবস্থার প্রেক্ষাপট বিবেচনায় পরিশেষে বলা যায়, পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজার এদেশে প্রাসঙ্গিক কারণেই খুব বেশি বিস্তৃত নয়।

প্রশ্ন- ৬  একচেটিয়া বাজারের বৈশিষ্ট্য

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের হলগুলোতে ‘কঝ ঘবঃড়িৎশ’ নামের একটি কোম্পানি ইন্টারনেট সেবা প্রদান করে। এজন্য তারা প্রতিটি কানেকশন বাবদ ৫০০ টাকা করে নেয়। স¤প্রতি তারা টাকার পরিমাণ বাড়িয়ে ৫৭৫ করেছে। ছাত্ররা খোঁজ নিয়ে জানতে পেরেছে, হলগুলোতে ইন্টারনেট সেবা প্রদানকারী অন্য কোনো কোম্পানি নেই। ফলে তারা ৫৭৫ টাকা দিয়েই ইন্টারনেটের লাইন নিতে বাধ্য হচ্ছে।
ক. উপকরণ কী? ১
খ. পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারে কোনো নির্দিষ্ট ক্রেতা বা বিক্রেতা মূল্য পরিবর্তন করতে পারে না কেন? ২
গ. উদ্দীপকের ‘কঝ ঘবঃড়িৎশ’-এর ব্যবসায় কোন ধরনের বাজারের বৈশিষ্ট্য পরিলক্ষিত হয়? ব্যাখ্যা কর। ৩
ঘ. উদ্দীপকের ‘কঝ ঘবঃড়িৎশ’-এর প্রতিদ্ব›দ্বী হিসেবে অন্য কোনো কোম্পানির আবির্ভাবের সম্ভাবনা পাঠ্যবইয়ের আলোকে বিশ্লেষণ কর। ৪

ক উৎপাদনে ব্যবহৃত যেকোনো মৌলিক উপাদানই উপকরণ।
খ বাজারের নগণ্য অংশ হওয়ায় পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারে কোনো নির্দিষ্ট ক্রেতা বা বিক্রেতা মূল্য পরিবর্তন করতে পারে না। পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারে অসংখ্য ক্রেতা-বিক্রেতা সমজাতীয় পণ্য কেনাবেচা করে। এক্ষেত্রে সমজাতীয় পণ্যের মূল্য বাজার চাহিদা ও যোগান দ্বারা একবার নির্ধারিত হলে তা ক্রেতা ও বিক্রেতাকে মেনে চলতে হয়। এক্ষেত্রে একজন ক্রেতার চাহিদা বা একজন বিক্রেতার যোগান বাজারের একটা নগণ্য অংশ মাত্র। ফলে একজন বা অল্প কয়েকজন ক্রেতা-বিক্রেতার পক্ষে মূল্যকে প্রভাবিত করা সম্ভবপর হয় না।
গ উদ্দীপকের ‘কঝ ঘবঃড়িৎশ’-এর ব্যবসায় একচেটিয়া বাজারের বৈশিষ্ট্য পরিলক্ষিত হয়। যখন কোনো একটি ফার্ম একটি দ্রব্য উৎপাদন করে অসংখ্য ক্রেতাকে যোগান দেয় তখন সেই ফার্মকে একচেটিয়া কারবারি এবং যে বাজারে ঐ দ্রব্যটি কেনাবেচা হয় সেই বাজারকে একচেটিয়া বাজার বলে। যে দ্রব্য বিক্রয়ে যে ফার্ম একচেটিয়া অধিকার লাভ করে সেই ফার্ম বাজারে সেই দ্রব্যের যোগান নিয়ন্ত্রণ করে। এক্ষেত্রে বিক্রেতা সংখ্যা মাত্র একজন হলেও ক্রেতার সংখ্যা অসংখ্য হয়ে থাকে। উদ্দীপকের ‘কঝ ঘবঃড়িৎশ’ নামক প্রতিষ্ঠানটি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের হলগুলোতে ইন্টারনেট সংযোগ প্রদানের ক্ষেত্রে একচেটিয়া রাজত্ব স্থাপন করেছে। এক্ষেত্রে হলগুলোতে ইন্টারনেট সেবা প্রদানকারী অন্য আর কোনো প্রতিষ্ঠান নেই। এই সুযোগ কাজে লাগিয়ে ‘কঝ ঘবঃড়িৎশ’ তাদের ইন্টারনেট সেবার বিনিময় মূল্য নিজেদের ইচ্ছামতো নিয়ন্ত্রণ করছে। কিছুদিন আগেও প্রতিটি ইন্টারনেট কানেকশনের জন্য ৫০০ টাকা প্রয়োজন হতো। কিন্তু বর্তমানে এই মূল্য বাড়িয়ে ৫৭৫ টাকা করা হয়েছে। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের হলগুলোর শিক্ষার্থীরাও অন্য কোনো ইন্টারনেট সেবা প্রদানকারী ফার্ম না থাকায় ৫৭৫ টাকা মূল্য পরিশোধ করতে বাধ্য হচ্ছে। এককভাবে পণ্য বা সেবার মূল্যের এরূপ নিয়ন্ত্রণ একচেটিয়া বাজারেরই বৈশিষ্ট্য। সুতরাং বলা যায়, ‘কঝ ঘবঃড়িৎশ’-এর ব্যবসায়টি একচেটিয়া বাজারের অন্তর্ভুক্ত।
ঘ উদ্দীপকের ‘কঝ ঘবঃড়িৎশ’-এর প্রতিদ্ব›দ্বী হিসেবে অন্য কোনো কোম্পানির আবির্ভাবের সম্ভাবনা একেবারেই ক্ষীণ বলা যায়। একচেটিয়া বাজারের একটি অন্যতম বৈশিষ্ট্য হলো এ ধরনের বাজারের অধীন শিল্পে নতুন ফার্মের প্রবেশের সুযোগ নেই। এক্ষেত্রে একটিমাত্র ফার্মই থাকে এবং এই ফার্মটিকে শিল্প থেকে আলাদা করা যায় না। একচেটিয়া ফার্ম পণ্য বা সেবা কম উৎপাদন করে বেশি দামে বিক্রি করতে পারে অথবা বেশি উৎপাদন করে কম দামে বিক্রি করতে পারে। এ কারণে প্রতিদ্ব›দ্বী ফার্ম তাদের সাথে টিকতে পারে না। ‘কঝ ঘবঃড়িৎশ’ নামক ইন্টারনেট সেবা প্রদানকারী ফার্মটি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের হলগুলোতে একচেটিয়া ব্যবসা করছে। এমতাবস্থায় যদি তাদের প্রতিদ্ব›দ্বী হিসেবে অন্য কোনো ফার্মের আবির্ভাব ঘটে তবে তারা কৌশলগতভাবে ব্যবসায়ে পরিবর্তন আনবে এবং এই পরিবর্তন অবশ্যই মূল্য নিয়ন্ত্রণের ক্ষেত্রে হবে। অর্থাৎ ‘কঝ ঘবঃড়িৎশ’ তাদের ব্যবসায় টিকিয়ে রাখার জন্য ইন্টারনেট সেবার বিনিময় মূল্য কমিয়ে দেবে। এক্ষেত্রে ‘কঝ ঘবঃড়িৎশ’-এর গ্রাহক সংখ্যা বেশি হওয়ায় তাদের ক্ষতির সম্ভাবনা নেই। কিন্তু নতুন আবিভর্‚ত কোম্পানিটি এক্ষেত্রে লোকসানের মুখ দেখবে এবং তাদের ব্যবসায় গুটিয়ে নিতে বাধ্য হবে। পরিশেষে বলা যায়, ‘কঝ ঘবঃড়িৎশ’-এর প্রতিদ্ব›দ্বী হিসেবে অন্য কোনো কোম্পানি বা ফার্মের আবির্ভাব ঘটলেও একচেটিয়া ব্যবসার কৌশলগত কারণে তাদেরকে পিছপা হতে হবে।

প্রশ্ন- ৭  বাজার ধারণা ও মৌলিক বিষয়

তানিয়া সুলতানা মনিরামপুর মহিলা ডিগ্রি কলেজের একজন শিক্ষার্থী। সে স¤প্রতি যশোর থেকে মোম দিয়ে শোপিস তৈরি করার কাজ শিখেছে। একটি ফার্ম স্থাপন করে মনিরামপুরের স্থানীয় কয়েকটি দোকানে সে এখন মোমের শোপিস সরবরাহ করে। এ থেকে সে প্রচুর লাভবান হচ্ছে। তার দেখাদেখি লুবনা হোসেন নামের আরেক শিক্ষার্থীও মোমের শোপিস বানাতে শুরু করে। তানিয়া নিজের ব্যবসায় টিকিয়ে রাখতে তার বানানো শোপিসের দাম কমিয়ে দেয়। ফলে লুবনা হোসেনের শোপিসগুলো দোকানদাররা নিতে চাচ্ছে না। এজন্য লুবনা ব্যবসা বন্ধ করে দেয়ার কথা ভাবছে।
ক. একচেটিয়া কারবারির মূল লক্ষ্য কী? ১
খ. একচেটিয়া বাজারে নতুন ফার্ম প্রবেশ করতে পারে না কেন? ২
গ. উদ্দীপকে একচেটিয়া বাজারের কোন বৈশিষ্ট্যটির ইঙ্গিত পাওয়া যায়? ব্যাখ্যা কর। ৩
ঘ. তানিয়া সুলতানার ফার্মটিকে কি হিসেবে অভিহিত করা যায়? পাঠ্যবইয়ের আলোকে তোমার মতামত দাও। ৪

ক একচেটিয়া কারবারির মূল লক্ষ্য সর্বাধিক মুনাফা অর্জন করা।
খ একচেটিয়া বাজারে বিদ্যমান ফার্মের কৌশলগত পদক্ষেপের কারণে নতুন ফার্ম প্রবেশ করতে পারে না। প্রকৃতপক্ষে একচেটিয়া শিল্পে নতুন ফার্মের প্রবেশের সুযোগ নেই। নতুন ফার্ম প্রবেশ করতে গেলে একচেটিয়া ফার্ম পণ্যের উৎপাদন বাড়িয়ে দাম কমিয়ে দেয়। সেক্ষেত্রে নতুন ফার্ম সম্ভাব্য লোকসানের ভয়ে প্রবেশ করে না। এ কারণেই একচেটিয়া বাজারে নতুন ফার্মের প্রবেশ সম্পূর্ণ বন্ধ থাকে।
গ উদ্দীপকে একচেটিয়া বাজারের নতুন ফার্মের প্রবেশ সংক্রান্ত বৈশিষ্ট্যটির ইঙ্গিত পাওয়া যায়। একচেটিয়া বাজারে অসংখ্য ক্রেতার বিপরীতে একটিমাত্র ফার্ম বা একজন বিক্রেতা থাকে। এই একটি ফার্ম একচেটিয়াভাবে পণ্য বা সেবার উৎপাদন ও মূল্য নিয়ন্ত্রণ করতে পারে। পরিস্থিতি অনুযায়ী একচেটিয়া ফার্ম পণ্যের উৎপাদন বাড়িয়ে দাম কমিয়ে দেয় অথবা উৎপাদন কমিয়ে দাম বাড়িয়ে দেয়। একচেটিয়া বাজারের এরূপ বৈশিষ্ট্যের কারণে এ ধরনের বাজারে নতুন ফার্ম প্রবেশ করতে পারে না। উদ্দীপকের তানিয়া সুলতানা মোমের শোপিস তৈরির প্রশিক্ষণ নেয়ার পর একটি ফার্ম স্থাপন করে স্থানীয় দোকানগুলোতে মোমের শোপিস সরবরাহ করার মাধ্যমে ব্যবসায় শুরু করে। এক্ষেত্রে এরূপ মোমের শোপিস বিক্রয়কারী আর কোনো ফার্ম না থাকায় সে একচেটিয়াভাবে বাজার দখল করে নিতে সক্ষম হয়। কিন্তু কিছুদিন পর লুবনা হোসেন নামের এক শিক্ষার্থীও মোমের শোপিসের ব্যবসায় শুরু করে। তখন তানিয়া সুলতানা একচেটিয়া বাজার নিয়ন্ত্রণের কৌশল প্রয়োগ করে। সে তার উৎপাদিত শোপিসগুলোর মূল্য কমিয়ে দেয়। ফলে স্থানীয় দোকানিরা লুবনা হোসেনের কাছ থেকে মোমের শোপিস ক্রয় না করে তানিয়ার কাছ থেকে ক্রয় করে। স্বাভাবিকভাবেই লুবনা হোসেন আর্থিকভাবে ক্ষতির সম্মুখীন হয় এবং ব্যবসায় গুটিয়ে নিতে বাধ্য হয়। সুতরাং এক্ষেত্রে একচেটিয়া বাজারে নতুন ফার্মের প্রবেশে যে প্রতিবন্ধকতা রয়েছে তা সুস্পষ্টরূপে ধরা পড়েছে।
ঘ বৈশিষ্ট্যগত দিক বিচারে তানিয়া সুলতানার ফার্মটিকে শিল্প হিসেবে অভিহিত করা যায়। শিল্প বলতে মূলত অর্থনৈতিক এমন একটি প্রতিষ্ঠান বোঝায় যার অধীনে অসংখ্য ফার্ম থাকতে পারে। অর্থাৎ শিল্প হলো একাধিক ফার্মের সমন্বয়ে গঠিত অর্থনৈতিক প্রতিষ্ঠান। তবে ক্ষেত্রবিশেষে একটি ফার্মও শিল্প গঠন করতে পারে। যেমন, একচেটিয়া বাজারের ক্ষেত্রে অসংখ্য ক্রেতার বিপরীতে একটিমাত্র ফার্ম থাকায় ফার্মটিই শিল্প হিসেবে পরিচিত হয়। উদ্দীপকে একচেটিয়া বাজারের একটি দৃষ্টান্ত উপস্থাপিত হয়েছে। এক্ষেত্রে তানিয়া সুলতানা নামের একজন শিক্ষার্থী তার এলাকায় একচেটিয়াভাবে মোমের শোপিসের ব্যবসায় পরিচালনা করছে। অন্য একটি ফার্মের আবির্ভাব ঘটলেও সেটি প্রতিযোগিতায় টিকতে পারেনি। এ প্রেক্ষিতে তানিয়া সুলতানার ফার্মটি তার এলাকায় মোমের শোপিস উৎপাদনকারী একমাত্র ফার্ম। ফলে শিল্পের সাথে তার ফার্মটিকে পার্থক্য করা সম্ভব নয়। প্রকৃতপক্ষে একচেটিয়া বাজারের ক্ষেত্রে যে ফার্মটি পণ্য বা সেবা বিক্রয়ে একচেটিয়া অধিকার লাভ করে সেই ফার্ম বাজারে সেই দ্রব্যের যোগান নিয়ন্ত্রণ করে। শিল্পে একাধিক ফার্ম থাকলে সেক্ষেত্রে ফার্মসমূহ দ্রব্যের উৎপাদন ও মূল্য নির্ধারণ করে। অন্যদিকে একচেটিয়া বাজারে নির্দিষ্ট ফার্ম ছাড়া আর অন্য কোনো ফার্ম নির্দিষ্ট সময় পর্যন্ত দ্রব্য উৎপাদন করতে পারে না বলে একচেটিয়া বাজারে ফার্ম ও শিল্পের মধ্যে কোনো পার্থক্য থাকে না। উপরিউক্ত আলোচনার পরিপ্রেক্ষিতে বলা যায়, একচেটিয়া বাজারের অন্তর্গত তানিয়া সুলতানার ফার্মটিকে শিল্প বলাটা যুক্তিসংগত।

প্রশ্ন- ৮  একচেটিয়া চাহিদার প্রকৃতি ও দাম বৃদ্ধি প্রভাব

নীলুফার ইয়াসমিন প্রতি মাসে একটি নামকরা ব্র্যান্ডের প্রসাধনী সামগ্রী কেনেন। এ মাসে একটি পারফিউম কিনতে গিয়ে দেখেন, আগের চেয়ে দাম ১০ টাকা বৃদ্ধি পেয়েছে। তিনি অন্য ব্র্যান্ডের পারফিউম নেয়ার কথা প্রথমে ভাবলেও শেষ পর্যন্ত বেশি দাম দিয়ে পছন্দের ব্র্যান্ডের পারফিউমই কিনলেন।
ক. সমজাতীয় দ্রব্য কী? ১
খ. উপকরণের পূর্ণ গতিশীলতা বলতে কী বোঝায়? ২
গ. উদ্দীপকে একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারের কোন বৈশিষ্ট্যটি ফুটে উঠেছে? ব্যাখ্যা কর। ৩
ঘ. নীলুফার ইয়াসমিনের পছন্দের ব্র্যান্ডের পারফিউমের দাম বৃদ্ধির প্রভাব অন্যান্য কোম্পানির ওপর কতটুকু পড়বে? পাঠ্যবইয়ের আলোকে বিশ্লেষণ কর। ৪

ক যেসব দ্রব্যের এককগুলোর গঠন ও গুণগত দিক থেকে একই রকম অথচ পৃথক করা যায়, তাদেরকে সমজাতীয় দ্রব্য বলে।
খ উপকরণের পূর্ণ গতিশীলতা বলতে পূর্ণ প্রতিযোগিতার বাজারে উপকরণের অবাধ বিচরণ বোঝায়। উপকরণের পূর্ণ গতিশীলতা পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারের একটি উল্লেখযোগ্য বৈশিষ্ট্য। পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারে শ্রম উপকরণসহ অন্যান্য উপকরণ বিচরণের ক্ষেত্রে কোনোরূপ বাধানিষেধ থাকে না। বিভিন্ন শিল্পের মধ্যে উপকরণের গতিশীলতা থাকায় উপকরণের দাম সর্বত্র সমান থাকে।
গ উদ্দীপকে একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারের চাহিদার প্রকৃত বৈশিষ্ট্যটি ফুটে উঠেছে। একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারে পূর্ণ প্রতিযোগিতা এবং একচেটিয়া বাজারের কতিপয় বৈশিষ্ট্য একযোগে দেখা যায়। এ ধরনের বাজারে কোনো পণ্যের দাম বাড়লে, পণ্যের চাহিদা সামান্য কমতে পারে, কিন্তু কখনই শূন্য হয় না। কারণ, কোনো ফার্ম পণ্যের মূল্য বৃদ্ধি করলে অনেক ভোক্তা অপর ফার্মের পরিবর্তক দ্রব্য ক্রয় করলেও এমন কিছু ভোক্তা থাকে যারা প্রথম ফার্মের পণ্যই কম পরিমাণে হলেও ক্রয় করে। উদ্দীপকে এ ধরনের একটি দৃশ্যপটই উপস্থাপিত হয়েছে। উদ্দীপকের নিলুফার ইয়াসমিন একটি নামকরা ব্র্যান্ডের পারফিউম ব্যবহার করে অভ্যস্ত। কিন্তু স¤প্রতি তিনি তার পছন্দের পারফিউম কিনতে গিয়ে দেখেন, আগের চেয়ে মূল্য ১০ টাকা বৃদ্ধি পেয়েছে। মূল্য বৃদ্ধি পেলেও তিনি শেষ পর্যন্ত তার পছন্দের পারফিউমই ক্রয় করেন। প্রকৃতপক্ষে একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারে প্রতিটি ফার্মের জন্য কিছু কিছু ক্রেতার বিশেষ পছন্দ থাকে। উদ্দীপকের নীলুফার ইয়াসমিনের পছন্দ থেকেই বিষয়টি প্রমাণিত হয়। আর ভোক্তার এরূপ বিশেষ পছন্দের কারণে একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারে প্রতিটি ফার্মের চাহিদা রেখার আকৃতি সাধারণত এক রকম হয় না। সুতরাং বলা যায়, উদ্দীপকে একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারের পণ্যের ‘চাহিদার প্রকৃতি’ বৈশিষ্ট্যটির বাস্তব চিত্র ফুটে উঠেছে।
ঘ নীলুফার ইয়াসমিনের পছন্দের ব্র্যান্ডের পারফিউমের দাম বৃদ্ধির প্রভাব অন্যান্য কোম্পানির ওপর খুব সামান্যই পড়বে। একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারে পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারের প্রতিযোগিতার বৈশিষ্ট্যটি উপস্থিত। এক্ষেত্রে একই জাতীয় পণ্য অনেক কোম্পানি উৎপাদন ও বিক্রি করে বলে মূল্যের বিষয়টি প্রভাবক হয়ে দাঁড়ায়। অর্থাৎ কোনো একটি ফার্ম পণ্যের দাম বৃদ্ধি করলে তার প্রভাব বাজারে পড়ার কথা। কিন্তু একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারের অধীনে শিল্পের ফার্মের সংখ্যা অনেক বেশি হওয়ায় এই প্রভাব মূলত দৃশ্যমান হয় না। উদ্দীপকে দেখা যায়, একটি নামকরা কোম্পানির পারফিউমের দাম বৃদ্ধি পেয়েছে। এই দাম বৃদ্ধির প্রভাব বাজারের অন্যান্য কোম্পানির ওপর খুব বেশি প্রবল হবে না। বৈশিষ্ট্য অনুসারে একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারে কোনো ফার্ম পণ্যের মূল্য অথবা উৎপাদনের পরিবর্তন করলে বহু সংখ্যক ফার্মের ওপর তা বি¯ৃÍত হয়। ফলে অপরাপর ফার্মের ওপর এই প্রভাব সামান্য হয়। উপরিউক্ত আলোচনার পরিপ্রেক্ষিতে বলা যায়, উদ্দীপকের নীলুফার ইয়াসমিনের পছন্দের ব্র্যান্ডের পারফিউম একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারের পণ্য হওয়ায় এটির দাম বৃদ্ধির বাজারে সামান্যই প্রভাব ফেলতে সক্ষম হবে।

প্রশ্ন- ৯  একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজার

শাকিল পরীক্ষার খাতায় লেখার জন্য স্টার সফ্ট জেল নামের কলম কিনে আনে। কিন্তু শাকিলের বড় ভাই তাকে ‘জননী চকো চকো’ কলম ব্যবহার করতে বলেন। কারণ হিসেবে তিনি উল্লেখ করেন, ‘জননী চকো চকো কলমের গুণগত মান ভালো’। শাকিল ‘জননী চকো চকো’ কলম ব্যবহার করে বুঝতে পারে, বিজ্ঞাপন দেখে স্টার কলম কিনে সে ভুল করেছিল।
ক. স্বাভাবিক মুনাফা কী? ১
খ. স্বল্পকালীন বাজার বলতে কী বোঝায়? ২
গ. উদ্দীপকে কোন ধরনের বাজারের বৈশিষ্ট্য প্রকাশ পেয়েছে? ব্যাখ্যা কর। ৩
ঘ. উদ্দীপকে উল্লিখিত দুটি কলমের ফার্মের মধ্যে প্রতিযোগিতার বিষয়টি পাঠ্যবইয়ের আলোকে বিশ্লেষণ কর। ৪

ক মোট আয় এবং মোট ব্যয় সমান হলে তাকে স্বাভাবিক মুনাফা বলে।
খ স্বল্পকালীন বাজার বলতে সেই বাজারব্যবস্থা বোঝায় যেখানে চাহিদার পরিবর্তন হলে যোগান খানিকটা সাড়া দিতে সক্ষম। স্বল্পকালীন বাজারে ফার্ম নির্দিষ্ট আয়তনের মধ্য থেকে পরিবর্তনশীল উপকরণগুলোর পরিবর্তনের মাধ্যমে যোগানে খানিকটা পরিবর্তন আনতে পারে। আবার বাজারে দ্রব্যের চাহিদা কমে গেলে ফার্ম উৎপাদন কমাতেও পারে বা বাজারের অবস্থা খুব খারাপ হলে উৎপাদন সাময়িকভাবে বন্ধও করে দিতে পারে।
গ উদ্দীপকে একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারের বৈশিষ্ট্যের প্রকাশ পেয়েছে। একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারের একটি উল্লেখযোগ্য বৈশিষ্ট্য হলো উৎপাদিত দ্রব্যের পৃথকীকরণ। এ ধরনের বাজারের অধীনে বিভিন্ন ফার্ম যেসব পণ্য উৎপাদন করে সেগুলো অনেকটা সদৃশ হলেও একটিকে অপরটি থেকে পৃথক করা সম্ভব। কারণ দ্রব্যগুলো গুণগত ও বাহ্যিক দিক থেকে কিছুটা পৃথক হয়ে থাকে। উৎপাদিত দ্রব্যের পৃথকীকরণের এ বৈশিষ্ট্যই উদ্দীপকে ফুটে উঠেছে। উদ্দীপকের শাকিল পরীক্ষার খাতায় লেখার জন্য ‘স্টার সফ্ট জেল’ নামের কলম কিনে আনে। কিন্তু শাকিলের ভাই তাকে ‘জননী চকো চকো’ কলম ব্যবহার করতে বলেন। দুই কোম্পানির কলম দিয়েই লেখার কাজ চলবে কিন্তু এ দুয়ের মধ্যে তুলনা করলে দেখা যাবে একটির গুণগত মান অপরটি থেকে পৃথক। এ কারণেই শাকিলের ভাই ‘জননী চকো চকো’ কলমের গুণগত মান বিবেচনা করে শাকিলকে তা ব্যবহার করতে বলেছেন। অর্থাৎ এক্ষেত্রে তিনি মূলত পৃথকীকরণের কাজটিই সম্পন্ন করেছেন। তাছাড়া উদ্দীপকে পণ্যের বিজ্ঞাপনের কথাও উল্লেখ করা হয়েছে। একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারে পণ্যের বিক্রি বাড়াতে বিজ্ঞাপনের প্রচার একটি উল্লেখযোগ্য বৈশিষ্ট্য। সুতরাং বলা যায়, উদ্দীপকটি একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজার ব্যবস্থার ইঙ্গিত বহন করছে।
ঘ একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারে বিভিন্ন ফার্মের ভেতর প্রতিযোগিতার বিষয়টি অবধারিত। উদ্দীপকে উল্লিখিত দুটি কলমের ফার্মের ক্ষেত্রেও তা ব্যতিক্রম নয়। একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারে একচেটিয়া বাজার এবং পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারের কতিপয় বৈশিষ্ট্যের সমন্বয় ঘটে। এ কারণে এ ধরনের বাজারে প্রতিযোগিতার বিষয়টি একটি সাধারণ বৈশিষ্ট্য। আর একই জাতীয় পণ্যের জন্য অসংখ্য ফার্ম বা কোম্পানি থাকায় প্রতিযোগিতা আরও চ‚ড়ান্ত রূপ লাভ করে। উদ্দীপকে ‘স্টার সফ্ট জেল’ ও ‘জননী চকো চকো’ নামের দুটি কলমের কোম্পানির উল্লেখ রয়েছে। এক্ষেত্রে এ দুই কোম্পানির মধ্যে প্রতিযোগিতার বিষয়টি স্পষ্ট হয়ে উঠেছে বিজ্ঞাপন প্রচারের মধ্য দিয়ে। ‘স্টার সফ্ট জেল’ কলম কোম্পানিটি পণ্যের বিক্রি বাড়ানোর জন্য বিজ্ঞাপন প্রচার করে। বিজ্ঞাপন দেখেই মূলত শাকিল এই কোম্পানির কলমের প্রতি আকৃষ্ট হয়েছিল। এভাবে বিজ্ঞাপনের মাধ্যমে একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারে দ্রব্যের গুণগতমান প্রচার করে ফার্মগুলো পরস্পরের মধ্যে প্রতিযোগিতা করে। এক্ষেত্রে লক্ষণীয় বিষয় হলো, বিভিন্ন ফার্মের উৎপাদিত দ্রব্যগুলো একই জাতীয় হলেও গুণগত ও বাহ্যিক দিক থেকে সমজাতীয় নয়। এ কারণেই একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারে প্রতিযোগিতার উদ্ভব হয়। উপরিউক্ত আলোচনায় একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারে ফার্মসমূহের প্রতিযোগিতার কারণ ও ধরন সম্পর্কে সুস্পষ্ট ধারণা পাওয়া যায়। এর প্রেক্ষিতে উদ্দীপকে উল্লিখিত দুটি কলম কোম্পানির প্রতিযোগিতার বিষয়টিও সহজেই অনুধাবন করা যায়।
প্রশ্ন- ১০  একচেটিয়া বাজার ও বিশুদ্ধ পূর্ণপ্রতিযোগিতা

দশম শ্রেণির শিক্ষার্থী অরিন রহমান “বাংলাদেশের বাজার ব্যবস্থা” শিরোনামে একটি প্রতিবেদন তৈরি করেছে। প্রতিবেদনে সে বাংলাদেশের কৃষিপণ্যের খুচরা বাজারকে বিশুদ্ধ পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজার হিসেবে চি‎িহ্নত করেছে। সে তার প্রতিবেদনের একটি অংশে নিচের ছকটি প্রদান করেছে

ক. একচেটিয়া বাজার কী? ১
খ. একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারে ফার্মসমূহ বিজ্ঞাপন প্রচার করে কেন? ২
গ. অরিন রহমানের উপস্থাপিত ছকের ক্যাটাগরি ই বাংলাদেশের কোন ধরনের বাজারকে নির্দেশ করে? ব্যাখ্যা কর। ৩
ঘ. অরিনের প্রতিবেদনে বাংলাদেশের কৃষিপণ্যের খুচরা বাজারকে বিশুদ্ধ পূর্ণ প্রতিযোগিতার বাজার হিসেবে চি‎ি‎হ্নত করা কতটুকু যৌক্তিক হয়েছে? পাঠ্যবইয়ের আলোকে মতামত দাও। ৪

ক কোনো দ্রব্যের যদি কেবল একজন উৎপাদনকারী বা বিক্রেতা থাকে এবং দ্রব্যটির কোনো বিকল্প পরিবর্তক দ্রব্য না থাকে তাহলে তার বাজারকে একচেটিয়া বাজার বলে।
খ একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারে ফার্মসমূহ পণ্যের বিক্রি বাড়ানোর জন্য বিজ্ঞাপন প্রচার করে। একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারে একই জাতীয় পণ্যের অসংখ্য ফার্ম থাকে। এসব ফার্মের উৎপাদিত পণ্যের মান গুণগত দিক থেকে সমান নয়। পণ্যের প্রচারের মাধ্যমে ফার্মগুলো তখন প্রতিযোগিতায় টিকে থাকতে চায়। এ কারণে একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারে ফার্মসমূহ উৎপাদিত দ্রব্যের প্রচারে বিজ্ঞাপন বাবদ একটি বড় অংশ খরচ করে থাকে এবং এতে বিক্রয়জনিত ব্যয়ও বৃদ্ধি পায়।
গ অরিন রহমানের উপস্থাপিত ছকের ক্যাটাগরি ই বাংলাদেশের একচেটিয়া বাজার ব্যবস্থাকে নির্দেশ করে। বাংলাদেশে উৎপাদিত পণ্যের ক্ষেত্রে একচেটিয়া বাজার দেখা যায় না। তবে আমদানিকৃত পণ্য কিংবা সেবার ক্ষেত্রে এরূপ বাজার দেখা যায়। বাংলাদেশের একচেটিয়া বাজার ব্যবস্থাকে অবশ্য পুরোপুরি একচেটিয়া বলা যায় না। বরং তা বৈশিষ্ট্যগত দিক বিবেচনায় প্রায় একচেটিয়া বাজারের অন্তর্ভুক্ত। উদ্দীপকের ছকটিতে এমনই কয়েকটি একচেটিয়া বাজার তুলে ধরা হয়েছে। উদ্দীপকের ছকে উল্লিখিত বাজারগুলো হলো বাংলাদেশ রেলওয়ে, বাংলাদেশ পেট্রোলিয়াম কর্পোরেশন ও তিতাস গ্যাস। এই বাজারগুলোর মধ্যে বাংলাদেশ রেলওয়ে রেলপথে যাতায়াতের ক্ষেত্রে একচেটিয়া বাজারের উদাহরণ। কারণ এক্ষেত্রে আর কোনো রেলওয়ে প্রতিষ্ঠান নেই। বাংলাদেশ রেলওয়ে সরকার কর্তৃক পরিচালিত হয় এবং এক্ষেত্রে সরকারই টিকিটের মূল্য নির্ধারণ করে থাকে। অন্যদিকে বাংলাদেশ পেট্রোলিয়াম কর্পোরেশন বিদেশ থেকে জ্বালানি তেল আমদানিকারক একমাত্র প্রতিষ্ঠান। আমদানিকৃত জ্বালানি তেল এ প্রতিষ্ঠানটি ডিলারের মাধ্যমে সারাদেশে সরবরাহ করে। কাজেই এটিও একচেটিয়া বাজারের অন্তর্ভুক্ত। আবার তিতাস গ্যাস বাংলাদেশের গ্যাসের বাজারে একচেটিয়া অধিকার লাভ করেছে। এদিক বিবেচনায় এটিও বাংলাদেশের একচেটিয়া বাজার ব্যবস্থার অন্তর্গত। সুতরাং বলা যায়, উদ্দীপকের ছকটি বাংলাদেশের একচেটিয়া বাজারের তিনটি ক্ষেত্র তুলে ধরেছে।
ঘ অরিন রহমান তার প্রতিবেদনে বাংলাদেশের কৃষিপণ্যের খুচরা বাজারকে বিশুদ্ধ পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজার হিসেবে চি‎িহ্নত করেছে; যা যৌক্তিক নয়। বিশুদ্ধ পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজার বলতে এমন এক বাজার ব্যবস্থা নির্দেশ করা হয় যেখানে পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারের শতভাগ বৈশিষ্ট্য বিদ্যমান রয়েছে। কিন্তু বাংলাদেশের প্রেক্ষাপটে এ ধরনের বাজার প্রকৃতপক্ষে খুঁজে পাওয়া যায় না। বাংলাদেশে বিদ্যমান এ জাতীয় বাজারগুলোকে তাই প্রায় পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজার হিসেবে চি‎িহ্নত করা যেতে পারে। উদ্দীপকের অরিন রহমান তার প্রতিবেদনে এ বিষয়টি উপস্থাপনে ব্যর্থ হয়েছে। বিশুদ্ধ পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারের একটি প্রধান বৈশিষ্ট্য হলো বাজার ব্যবস্থার বিদ্যমান পণ্যের এককের গুণাগুণ এবং মূল্য সম্পর্কে ক্রেতা ও বিক্রেতা পুরোপুরি অবহিত থাকে। বাংলাদেশের পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজার ব্যবস্থায় বেশিরভাগ ক্ষেত্রেই এ বৈশিষ্ট্যটিই অনুপস্থিত থাকে। এ জন্যই বাংলাদেশে পূর্ণ প্রতিযোগিতার কাছাকাছি বাজার লক্ষ করা যায়। অরিন রহমানের উল্লিখিত বাংলাদেশের কৃষিপণ্যের খুচরা বাজার এ ধরনের বাজারের ভালো উদাহরণ। প্রাথমিক ধানের বাজারে বহুসংখ্যক ক্রেতা ও বিক্রেতা থাকে এবং কোনো একজন উৎপাদক ধানের বাজার প্রভাবিত করতে পারে না। এভাবে অন্যান্য খাদ্যশস্য, মাছ, মুরগি, ডিম, দুধ প্রভৃতির বাজারও পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বা তার কাছাকাছি। কিছু কিছু সেবার ক্ষেত্রেও এ বাজার দেখা যায়। যেমন, বাস ও রিকশা পরিবহন। উপরিউক্ত আলোচনা থেকে সুস্পষ্টরূপে প্রতীয়মান হয়, বাংলাদেশে বিশুদ্ধ পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারের কোনো অস্তিত্ব নেই। তাই অরিনের এ সম্পর্কিত সিদ্ধান্তটি ভুল ছিল।

 জ্ঞানমূলক প্রশ্ন ও উত্তর 
প্রশ্ন \ ১ \ দলীয় ভারসাম্য লক্ষ করা যায় কোন বাজারে?
উত্তর : দলীয় ভারসাম্য লক্ষ করা যায় একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারে।
প্রশ্ন \ ২ \ কোন ধরনের বাজারে দ্রব্যের দাম, যোগানের চেয়ে চাহিদা দ্বারাই বেশি প্রভাবিত হয়?
উত্তর : স্বল্পকালীন বাজারে দ্রব্যের দাম, যোগানের চেয়ে চাহিদা দ্বারাই বেশি প্রভাবিত হয়।
প্রশ্ন \ ৩ \ কোন বাজারে দ্রব্যের চাহিদার সাথে যোগানের সম্পূর্ণ সামঞ্জস্য বিধান করা যায়?
উত্তর : দীর্ঘকালীন বাজারে দ্রব্যের চাহিদার সাথে যোগানের সম্পূর্ণ সামঞ্জস্য বিধান করা যায়।
প্রশ্ন \ ৪ \ প্রতিযোগিতার ভিত্তিতে বাজারকে প্রধানত কত ভাগে ভাগ করা যায়?
উত্তর : প্রতিযোগিতার ভিত্তিতে বাজারকে প্রধানত ২ ভাগে ভাগ করা যায়।
প্রশ্ন \ ৫ \ কেবল একটি দাম বিরাজ করে কোন ধরনের বাজারে?
উত্তর : কেবল একটি দাম বিরাজ করে পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারে।
প্রশ্ন \ ৬ \ কোন বাজারে বিক্রয়যোগ্য দ্রব্যটির ঘনিষ্ঠ বিকল্প দ্রব্য থাকে না?
উত্তর : একচেটিয়া বাজারে বিক্রয়যোগ্য দ্রব্যটির ঘনিষ্ঠ বিকল্প দ্রব্য থাকে না।
প্রশ্ন \ ৭ \ বাজারের ধারণায় কয়টি মৌলিক বিষয় রয়েছে?
উত্তর : বাজারের ধারণায় তিনটি মৌলিক বিষয় রয়েছে।

 অনুধাবনমূলক প্রশ্ন ও উত্তর 
প্রশ্ন \ ১ \ শিল্প বলতে কী বুঝায়?
উত্তর : শিল্প বলতে একই ধরনের পণ্য উৎপাদনকারী ফার্মের সমষ্টিকে বোঝায়।
যেকোনো শিল্পের ক্ষেত্রে একাধিক ফার্মের অস্তিত্ব বিদ্যমান থাকে। যেমন পাটশিল্পকে যদি আমরা উদাহরণ হিসেবে উপস্থাপন করি, তাহলে দেখা যাবে অনেক পাটকল বা জুট মিলের সমন্বয়ে পাটশিল্প গড়ে ওঠে। অবশ্য একচেটিয়া বাজারের ক্ষেত্রে একটি মাত্র ফার্মের উপস্থিতি থাকে বলে একাধিক ফার্ম মিলে শিল্প গঠন এক্ষেত্রে সম্ভব হয় না। এক্ষেত্রে একটি ফার্ম নিয়েই শিল্প গড়ে ওঠে।
প্রশ্ন \ ২ \ সমজাতীয় দ্রব্য বলতে কী বোঝায়?
উত্তর : যেসব দ্রব্যের এককগুলো গঠন ও গুণগত দিক থেকে একই রকম অথচ পৃথকীকরণ করা যায়, তাদেরকে সমজাতীয় দ্রব্য বলে।
সমজাতীয় দ্রব্য পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারের অন্যতম বৈশিষ্ট্য। এক্ষেত্রে বাজারে বিবেচিত পণ্য সমজাতীয় বা একই গুণসম্পন্ন হয়। পরিমাণগত ও গুণগত দিক থেকে পণ্যের একটি একক অন্য একক থেকে পৃথক করা যায় না। তবে বাহ্যিক ও আকারগত বিভিন্ন বৈশিষ্ট্য বিবেচনায় এ জাতীয় পণ্যসমূহকে পৃথকীকরণ করা যায়।
প্রশ্ন \ ৩ \ একচেটিয়া বাজার বলতে কী বোঝায়?
উত্তর : একচেটিয়া বাজার বলতে সেই বাজারকে বোঝায় যে বাজারে একজন মাত্র বিক্রেতা অসংখ্য ক্রেতার নিকট উৎপাদিত দ্রব্য বিক্রয় করেন।
একচেটিয়া বাজারে একটিমাত্র ফার্ম থাকে। এক্ষেত্রে যে দ্রব্য বিক্রয়ে যে ফার্ম একচেটিয়া অধিকার লাভ করে সেই ফার্ম বাজারে সেই দ্রব্যের যোগান নিয়ন্ত্রণ করে। এই ফার্মটি ছাড়া অন্য কোনো ফার্ম একটি নির্দিষ্ট সময় পর্যন্ত ঐ দ্রব্যটি উৎপাদন করতে পারে না। বাস্তবে পুরোপুরি একচেটিয়া বাজার খুঁজে পাওয়া কঠিন।
প্রশ্ন \ ৪ \ একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজার বলতে কী বোঝায়?
উত্তর : যে বাজারে পূর্ণ প্রতিযোগিতা এবং একচেটিয়া বাজারের কিছু বৈশিষ্ট্য একযোগে দেখা যায়, তাকে একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজার বলে।
একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজারে বিভিন্ন ফার্ম যে দ্রব্যগুলো উৎপাদন করে তা সদৃশ্য হলেও অভিন্ন নয়। অর্থাৎ দ্রব্যের মধ্যে কিছু ভিন্নতা থাকে। দ্রব্যের এই পৃথকীকরণের মধ্যে একচেটিয়া বাজারের উপকরণ বিদ্যমান। আবার বহু সংখ্যক ক্রেতা-বিক্রেতা থাকায় পূর্ণ প্রতিযোগিতাও বিদ্যমান। এভাবে একচেটিয়া প্রতিযোগিতামূলক বাজার গড়ে ওঠে।
প্রশ্ন \ ৫ \ বাংলাদেশে পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজার নেই কেন?
উত্তর : ক্রেতা-বিক্রেতা বাজার সম্পর্কে পূর্ণ জ্ঞাত না হওয়ায় বাংলাদেশে বিশুদ্ধ পূর্ণ প্রতিযোগিতমূলক বাজার নেই।
বাজার ব্যবস্থা পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক হলে পণ্যের এককের গুণাগুণ এবং দাম সম্পর্কে ক্রেতা ও বিক্রেতা পুরোপুরি অবহিত থাকে। কিন্তু বাংলাদেশের প্রেক্ষিতে পূর্ণ প্রতিযোগিতামূলক বাজারের এ বৈশিষ্ট্যটি বিদ্যমান থাকে না। এজন্য বাংলাদেশে পূর্ণ প্রতিযোগিতার কাছাকাছি বাজার ব্যবস্থা পরিলক্ষিত হয়।
প্রশ্ন \ ৬ \ অলিগপলি বাজার বলতে কী বোঝায়?
উত্তর : অলিগপলি এমন এক বাজার ব্যবস্থা যেখানে কতিপয় বিক্রেতা ও অনেক ক্রেতা সমজাতীয় বা প্রায় সমজাতীয় দ্রব্য ক্রয় বিক্রয় করেন।
অলিগপলি বাজারে একজন বিক্রেতা অন্যান্য বিক্রেতার আচরণ পর্যবেক্ষণ করে সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেন। যেমন, টেলিযোগাযোগ খাতের অ ফার্ম তার পণ্যের বিজ্ঞাপনে একজন চলচ্চিত্রের নায়ককে ব্যবহার করেন। সেটা পর্যবেক্ষণ করে ই ফার্ম তার ক্রেতাদের আকৃষ্ট করার চেষ্টা করেন।
প্রশ্ন \ ৭ \ অতি স্বল্পকালীন বাজারে যোগান স্থির থাকে কেন?
উত্তর : সময়ের প্রেক্ষিতে স্বল্পকাল স্থায়ী হওয়ায় অতি স্বল্পকালীন বাজারে যোগান স্থির থাকে।
অতি স্বল্পকালীন বাজারে অতি অল্প সময়ের মধ্যে পণ্যের চাহিদা ও মূল্য বৃদ্ধি পেতে পারে। কিন্তু অল্প সময়ের মধ্যে পণ্যের যোগানের পরিবর্তন করা সম্ভ^ব হয় না। এক্ষেত্রে সময়ই মূলত প্রভাবকের ভ‚মিকা পালন করে। সময়ের ব্যাপ্তি যদি বেশি হতো তাহলে যোগানের পরিবর্তন করা সম্ভবপর হতো।
প্রশ্ন \ ৮ \ উপকরণ বাজার বলতে কী বোঝায়?
উত্তর : উপকরণ বাজার বলতে সেই প্রক্রিয়া বোঝায় যে প্রক্রিয়ায় ক্রেতা ও বিক্রেতার মধ্যে উপকরণ বেচাকেনা হয়।
উৎপাদনে ব্যবহৃত যেকোনো মৌলিক উপাদানকে উপকরণ বলে। অন্যভাবে বলা যায়, উৎপাদন ব্যবস্থার যা ব্যবহৃত হয় তাকে উপকরণ বলে। উপকরণের বেচাকেনাকে কেন্দ্র করেই গড়ে ওঠে উপকরণ বাজার। এক্ষেত্রে উপকরণের বেচাকেনা নির্ভর করে উপকরণের মূল্যের ওপর এবং উপকরণের চাহিদা ও যোগান দ্বারা উপকরণের মূল্য নির্ধারিত হয়।

 

প্রিয় জনের সাথে শেয়ার করুন

Leave a Reply